l

রবিবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৪:০৮ অপরাহ্ন

বাংলাদেশের নতুন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ

বাংলাদেশের নতুন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ

এখানে শেয়ার বোতাম

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

স্বদেশ জুড়ে ডেস্ত: বাংলাদেশের ২০তম রাষ্ট্রপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন এডভোকেট আবদুল হামিদ। নির্বাচন কমিশন আজ সোমবার তাঁকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রাষ্ট্রপতি পদে নির্বাচিত ঘোষণা করে। এর আগে গতকাল রোববার আওয়ামী লীগের সংসদীয় দল দেশের ২০তম রাষ্ট্রপতি হিসেবে আবদুল হামিদকে মনোনয়ন দেয়। জিল্লুর রহমানের মৃত্যুর পর তিনিই দেশের অস্থায়ী রাষ্ট্রপতির দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। সংবিধান অনুসারে রাষ্ট্রপতি হিসেবে তাঁর মেয়াদকাল হবে শপথ গ্রহণের দিন থেকে পরবর্তী পাঁচ বছর। নতুন রাষ্ট্রপতি আগামী পাঁচ বছর অর্থাৎ পরবর্তী সরকার আমলেও রাষ্ট্রধানের দায়িত্বে অধিষ্ঠিত থাকবেন।

৬৯ বছর বয়সী এই রাজনীতবিদ কিশোরগঞ্জ থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন সাতবার পরবর্তীতে স্পিকারের দায়িত্ব পালন করেছেন দুই দফা।১৯৪৪ সালের ১ জানুয়ারি কিশোরগঞ্জের মিঠামইন উপজেলার কামালপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন আবদুল হামিদ। তার রাজনৈতিক জীবন শুরু হয় ১৯৫৯ সালে, ছাত্রলীগে যোগ দেয়ার মধ্য দিয়ে। ১৯৭০ সালের নির্বাচনে ময়মনসিংহ-১৮ আসন থেকে পাকিস্তান জাতীয় পরিষদের সর্বকনিষ্ঠ সদস্য হিসাবে নির্বাচিত হন আবদুল হামিদ। মুক্তিযুদ্ধে অবদানের স্বীকৃতি হিসাবে চলতি বছর আব্দুল হামিদকে স্বাধীনতা পদকে ভূষিত করা হয়। ১৯৭৩ সালের ৭ মার্চ দেশের প্রথম সাধারণ নির্বাচনে কিশোরগঞ্জ-৫ আসন থেকে নির্বাচিত হন আবদুল হামিদ। ১৯৮৬ সালের তৃতীয় সংসদ, ১৯৯১ সালের পঞ্চম সংসদ, ১৯৯৬ সালের সপ্তম সংসদ, ২০০১ সালের অষ্টম সংসদ এবং সর্বশেষ ২০০৮ সালের নির্বাচনেও তিনি সাংসদ নির্বাচিত হন। সপ্তম সংসদে ১৯৯৬ সালের ১৩ জুলাই থেকে ২০০১ এর ১০ জুলাই পর্যন্ত ডেপুটি স্পিকারের দায়িত্ব পালনের পর ২০০১ এর ২৮ অক্টোবর পর্যন্ত স্পিকার হিসাবে সংসদ পরিচালনা করেন আবদুল হামিদ। আর নবম সংসদে নির্বাচিত হওয়ার পর দ্বিতীয়বারের মতো স্পিকার হন।

দেশের ১৯ তম রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমানের অসুস্থতার কারণে গত ১১ মার্চ অস্থায়ী রাষ্ট্রপতির দায়িত্ব পান আবদুল হামিদ। জিল্লুর রহমানের মৃত্যুর পর নির্বাচন কমিশন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে, যাতে ২৯ এপ্রিল সংসদে ভোটের দিন রাখা হয়। তবে প্রার্থী মাত্র একজন হওয়ার ভোটাভুটির প্রয়োজন হয়নি। রোববার মনোনয়নপত্র দাখিলের ধার্য দিনে জাতীয় সংসদ ভবনে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সংসদীয় দলের বৈঠকে সর্বসম্মতিক্রমে আবদুল হামিদকে প্রার্থী মনোনীত করা হয়। সংসদে আওয়ামী লীগের নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা থাকায় কার্যত তখনি আবদুল হামিদের রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে যায়। জিল্লুর রহমানের মৃত্যুর পর রাষ্ট্রপতির দায়িত্ব পালন করে আসা আবদুল হামিদ সংসদ ভবনে প্রধানমন্ত্রী ও সংসদ নেতা শেখ হাসিনার পাশে বসেই রোববার দুপুরে মনোনয়নপত্রে সই করেন। পরে আওয়ামী লীগ নেতারা তা কমিশনে জমা দেন। তফসিল অনুযায়ী, ২৯ এপ্রিল রাষ্ট্রপতি নির্বাচন। তবে গতকাল শেষ দিনে আর কেউ মনোনয়নপত্র জমা না দেওয়ায় নির্বাচন কমিশন আজ আবদুল হামিদকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রাষ্ট্রপতি পদে নির্বাচিত ঘোষণা করেন। ইসি সচিবালয় এখন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের বিষয়টি গেজেট আকারে প্রকাশ করবে। এরপর বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতিকে শপথ বাক্য পাঠন করাবেন প্রধান বিচারপতি।

জিল্লুর রহমানের প্রতি আস্থা দেখানো বিএনপি নতুন রাষ্ট্রপতি হিসেবে গ্রহণযোগ্য একজন ব্যক্তিকে মনোনীত করতে সরকারের প্রতি আহবান জানিয়ে আসছে। যদিও হামিদ বরাবরই বলে আসছিলেন, স্পিকার হিসেবে নিরপেক্ষ ভূমিকায় রয়েছেন তিনি। তাৎক্ষণিকভাবে কোনো প্রতিক্রিয়া না জানালেও স্পিকার হিসেবে আবদুল হামিদের প্রতি পক্ষপাতের অভিযোগ করে আসছিল বিএনপি। এই বিষয়ে বিএনপির প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হলে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন দলীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, আমরা দলীয় ফোরামে আলোচনার পর এই বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানাবো।

নতুন নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট আব্দুল হামিদ রাষ্ট্রপতি হিসেবে শপথ নেওয়ার পর স্পিকারের পদটি শূন্য হয়ে যাবে। আওয়ামীলীগের শীর্ষ পর্যায়ের নেতারা নতুন স্পিকার খোঁজা শুরু করেছেন। দলীয় সূত্রে জানা গেছে, স্পিকার ও ডেপুটি স্পিকার পদে শিরীন শারমিন চৌধুরী, শওকত আলী, আবদুল মতিন খসরু, আলী আশরাফ প্রমুখের নাম শোনা যাচ্ছে। আবার স্পিকার ও ডেপুটি স্পিকার দুজনই নতুন হতে পারেন। তবে প্রধানমন্ত্রী এ পদে মনোনয়নে আরও কয়েক দিন সময় নিতে পারেন বলে জানা গেছে।

 


এখানে শেয়ার বোতাম






পুরানো সংবাদ সংগ্রহ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  
All rights reserved © 2021 shirshobindu.com