মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ০২:৫৪

সরকারী কর্মকর্তার সাড়ে নয় লাখ টাকা আত্মসাৎ

সরকারী কর্মকর্তার সাড়ে নয় লাখ টাকা আত্মসাৎ

/ ৬৮
প্রকাশ কাল: সোমবার, ১ এপ্রিল, ২০১৩

 

 

 

 

 

 

 

 

 

সরকারি প্রকল্পের প্রায় সাড়ে নয় লাখ টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগে সিলেট জেলা পরিষদের সচিব সুজিত রায় ও প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) একেএম নজরুল ইসলামকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন।

গতকাল সোমবার আদালত দুদকের চার্জশিট গ্রহণ করলে নথিভুক্ত হয়।  অভিযোগপত্রে বলা হয়, প্রকল্পের মোট নয় লাখ ৬৫ হাজার টাকা সোনালী ব্যাংকের ছাতক শাখায় উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার চলতি হিসাব নম্বরে ১২টি ব্যাংক চেকের মাধ্যমে অর্থ আত্নসাৎ করা হয়। চেকগুলো ইউএনও ইস্যু করেন। অভিযোগপত্রে চেক নম্বর ও টাকা উত্তোলনের হিসাবের বর্ণনা উল্লেখ করা হয়েছে। তদন্ত কর্মকর্তা জানান, চার্জশিট আদালতে দাখিল করে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ১৯৪৭ সনের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ৫(২) ধারা এবং দণ্ডবিধির ৪০৯/১০৯ ধারায় আদালতে বিচার প্রার্থনা করা হয়েছে।

দুদক সূত্র জানায়, অভিযুক্ত দুজন ছাতকে কর্মরত থাকা অবস্থায় সরকারের অতি দরিদ্রের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি ২০১০-১১ অর্থ বছর প্রকল্পের (প্রথম পর্যায়) নয় লাখ ৬৫ হাজার টাকা আত্নসাৎ করার অভিযোগে গত বছরের ১৪ ফেব্রুয়ারি দুদক সিলেটের সহকারী পরিচালক মো. জাকির হোসেন বাদী হয়ে মামলা করেন।  তাঁর সঙ্গে অভিযুক্ত অপর কর্মকর্তা পিআইও নজরুল ছাতক থেকে বদলি হয়ে বর্তমানে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলায় কর্মরত রয়েছেন।মামলা দায়েরের পর প্রায় এক বছর তদন্ত শেষে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় দুজনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়।

 




Leave a Reply

Your email address will not be published.



পুরানো সংবাদ সংগ্রহ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
All rights reserved © shirshobindu.com 2022