সোমবার, ২১ জুন ২০২১, ০৫:৫০

৬ই এপ্রিল লংমার্চ প্রতিরোধে হরতাল

৬ই এপ্রিল লংমার্চ প্রতিরোধে হরতাল

/ ৬ বার পড়া হয়েছে
প্রকাশ কাল : বৃহস্পতিবার, ৪ এপ্রিল, ২০১৩

 

 

 

 

 

 

 

 

দেশজুড়ে ডেস্ক: হেফাজতে ইসলামের ৬ই এপ্রিল লংমার্চ প্রতিহত করতে শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে শনিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত যৌথভাবে হরতাল ডেকেছে ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি (ঘাদানিক), সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট, সম্মিলিত পেশাজীবী পরিষদ ও সেক্টর কমান্ডা ফোরাম। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে দশটায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক (টিএসটি) তে সংগঠনগুলোর পক্ষ থেকে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে এ হরতালের ঘোষণা দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন ঘাদানিক নেতা সাংবাদিক শাহারীয়ার কবীর।

প্রসঙ্গত, শাহবাগে আন্দোলনরত ব্লগারদের বিভিন্ন ব্লগে ইসলাম ধর্ম, নবী ও ধর্মপ্রাণ মুসলামনদের নিয়ে নেতিবাচক মন্তব্য করায় এদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে হেফাজতে ইসলাম নামের একটি সংগঠন ৬ এপ্রিল ঢাকা অভিমুখে লংমার্চ আহবান করে। এর বিরোধীতা ও প্রতিহত করা এবং আটক ব্লগারদের মুক্তির দাবীতে ব্লগারদের পক্ষে শুক্রবার সন্ধ্যা থেকে শনিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত এই হরতাল আহবান করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন শাহরিয়ার কবীর।

হরতালে বামদের পূর্ণ সমর্থন

হেফাজতে ইসলামের লংমার্চ প্রতিরোধ এবং জামায়াত-শিবিরের রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবিতে শুক্রবার সন্ধ্যা থেকে ২৪ ঘণ্টার হরতালে সমর্থন দিয়েছে জাসদ, ওয়ার্কার্স পার্টি, কমিউনিস্ট পার্টি, বাসদসহ দেশের সব বামদল। বৃহস্পতিবার দুপুরে সিপিবি ও বাসদের যৌথ সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে দেশব্যাপী ২৪ ঘণ্টা হরতালের কর্মসূচির সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করেছে। বিবৃতিতে ৫ ও ৬ এপ্রিলের ২৪ ঘণ্টার হরতাল কর্মসূচি সফল করার জন্য দেশবাসীর প্রতি আহবান জানান বামদলগুলো।

এর আগে সকালে ২৫টি সংগঠনের এই হরতালে সমর্থন দেয় ওয়ার্কার্স পার্টি, গণতন্ত্রী পার্টিসহ দেশের ১০টি বামপন্থী রাজনৈতিক দল। এসব দলের মধ্যে রয়েছে, গণআজাদী লীগ, মজদুর পার্টি, গণঐক্য, জনসংহতি সমিতি, ন্যাপ (মোজাফফর), কমিউনিস্ট কেন্দ্র, সাম্যবাদী দল ও বাসদ (বিএসডি)।

পাশাপাশি জামায়াত-শিবিরকে নিষিদ্ধ করার লক্ষ্যে সুনির্দিষ্ট পদক্ষেপ গ্রহণ ও যুদ্ধপরাধীদের বিচার ত্বরান্বিত করে রায় কার্যকর করার দাবিতে জনগণকে আন্দোলন তীব্রতর করার আহবান জানান তারা।

হেফাজতে ইসলাম এর পাল্টা জবাব

সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের ৬ই এপ্রিলের হরতাল প্রত্যাহার না হলে ৭ই এপ্রিল থেকে লাগাতার হরতাল ডাক দেয়া হবে বলে ঘোষণা দিয়েছে হেফাজতে ইসলাম। লালবাগে হেফাজতে ইসলামের মহানগর কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলন থেকে দলটির আমীর আল্লামা শাহ আহমেদ শফি সকালে এ ঘোষণা দিয়েছেন। কেবল ৬ই এপ্রিলের হরতাল প্রত্যাহার নয়- লংমার্চ কর্মসূচিতে বাধা আসলেও লাগাতার হরতাল কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে জানান তারা।

সংবাদ সম্মেলনে জায়নামাজ ও তসবিহ নিয়ে আল্লাহর জিকির করতে ঢাকা অভিমুখে যাত্রা করার আহবান জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে মাওলানা শফির লিখিত বক্তব্য পাঠ করা হয়। এতে বলা হয়, সরকারের মদদে ডাকা  ৬ই এপ্রিল হরতাল কর্মসূচি প্রত্যাহার করা না হলে ৭ই এপ্রিল থেকে লাগাতার হরতাল চলবে। অভিযোগ করে লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, পরিবহন মালিক সমিতিকে বাস ভাড়া না দেয়ার জন্য চাপ দেয়া হয়েছে। কোনো প্রতিবন্ধকতা আমাদের রুখতে পারবে না।

আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকেও বলি- এটা কারও বিরুদ্ধে আন্দোলন নয়, কাউকে গদিতে বসানোর জন্যও এ আন্দোলন নয়। ঈমানি দায়িত্ব পালনের অংশ হিসেবেই লংমার্চ কর্মসূচি দেয়া হয়েছে। সবাইকে ৬ই এপ্রিল সকাল ১০টায় মতিঝিলের শাপলা চত্বরে উপস্থিত হওয়ার আহবান জানানো হয়।

 






পুরানো সংবাদ সংগ্রহ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০  
All rights reserved © 2021 shirshobindu.com