বুধবার, ০৬ জুলাই ২০২২, ১০:৩৯

এইডেড হাই স্কুলের পুনর্মিলনী অনাড়ম্বরে অনুষ্ঠিত

এইডেড হাই স্কুলের পুনর্মিলনী অনাড়ম্বরে অনুষ্ঠিত

/ ৬৪
প্রকাশ কাল: সোমবার, ২৪ ডিসেম্বর, ২০১২

সিলেটের প্রাচীনতম দ্যা এইডেড হাই স্কুলের প্রাক্তন ছাত্র-শিক্ষক ৮৫তম বছরপূর্তি পুনর্মিলনী উপলক্ষে আয়োজিত দুইদিনব্যাপী অনুষ্টানের গতকাল শনিবার ছিল শেষ দিন।প্রথম দিন শুক্রবার আয়োজন করা হয় এক বিশাল ব্যালির। এটি শহরের প্রধার প্রধান সড়ক অতিক্রম করে স্কুল প্রাঙ্গনে এসে সকলে এক সাথে মিলিত হন।  শেষ দিন শনিবার স্কুল মাঠে সমাপনী পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে স্কুল জীবনের স্মৃতিচারণ করেন স্কুলের এক সময়ের ছাত্র সাবেক নির্বাচন কমিশনার ছহুল হোসাইন, পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের আহবায়ক ধীরাজ মাধব চক্রবর্তী, ব্রিগেডিয়ার (অব.) জুবায়ের সিদ্দিকী, সাবেক এমপি দিলদার হোসেন সেলিম, বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আরিফুল হক চৌধুরী, সিলেট জেলা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মাহিউদ্দিন আহমদ সেলিম মাহা, সাবেক প্রধানমন্ত্রীর সহকারী প্রেস সচিব ও অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাস্ট নিউজবিডি ডটকমের সম্পাদক মুশফিকুল ফজল আনসারী, খান সৈয়দ এনায়েত হোসেন, মো. আব্দুল মঈন,  এবিএম এনায়েত হোসেন মানস, রাজনিতীবিদ বদরুজ্জামান সেলিম, নাসিম হোসাইন, হেলাল আহমদ, অ্যাডভোকেট আব্দুল গফফার, অধ্যাপক বাসু দেব চৌধুরী, অ্যাডভোকেট মইনুল ইসলাম,  মো. আব্দুল মান্নান, আতাউল্লাহ সাকেরসহ আর অনেক সাবেক ছাত্র ও শিক্ষকবৃন্দ।

অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন ৮৫তম বছরপূর্তি স্মারক প্রকাশনা কমিটির আহবায়ক সাংবাদিক জনাব ইকরামুল কবির। অনুষ্ঠানে বক্তারা স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে খুঁজে ফিরেন পুরনো দিনের  হারিয়ে যাওয়া সোনালী জীবনের সোনাঝরা দিনগুলো। তারা বলেন, এ স্কুল থেকে আমাদের শিক্ষাজীবনের পথচলা। স্কুলজীবনের বহু স্মৃতি আজও চোখের সামনে ভেসে উঠে। কখনো আনন্দ পাই, কথনো কষ্ট পাই, কখনো স্মৃতিতে ফিরে যাওয়ার আপ্রাণ চেষ্টা করি। আজ আমরা সেই পুরনো স্মৃতিকে ফিরে পাওয়ার এক প্রয়াস খুঁজে পেয়েছি। অনেক ভালো লাগছে এখানে এসে। তারা বলেন, প্রাচীন দ্যা এইডেড হাই স্কুল সিলেটের এক ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ। এখান থেকে অসংখ্য গুণীজন তাদের সাফল্যর দারপ্রান্তে হয়েছেন্ তার শিক্ষাজীবন সমাপ্ত করে। যারা দেশে ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে আজ সুপ্রতিষ্ঠিত। এভাবে যুগের পর যুগ এইডেড হাই স্কুল সিলেটের শিক্ষার উন্নয়নে বিশেষ ভূমিকা রাখবে বলে সবাই আশা প্রকাশ করেন।

পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের সমাপনী দিনে স্মৃতিচারণ ছাড়াও খেলাধুলা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও রাফেল ড্র-এর আয়োজন করা হয়। এর আগে প্রথম দিন শুক্রবার সকাল ৯টায় পতাকা উত্তোলন ও জাতীয় সংগীত, স্কুল সংগীত পরিবেশন, পায়রা, বেলুন ও ফেস্টুন উড়ানোর মাধ্যমে পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান। প্রথম দিনে স্মৃতিচারণ পর্ব ছাড়াও সংবর্ধনা প্রদান, ফানুস উড়ানো এবং মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়। এতে স্কুলের সাবেক শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠানের প্রথম দিনে শফিকুর রহমান এমপি, সাবেক পৌর মেয়র আফম কামাল হোসেন, সাংবাদিক আজিজ আহমদ সেলিম  প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।




Leave a Reply

Your email address will not be published.



পুরানো সংবাদ সংগ্রহ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
All rights reserved © shirshobindu.com 2022