দুনিয়া জুড়ে

রুপিহীন ভারতের প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

দুনিয়া জুড়ে ডেস্ক: বুধবার রাজ্যসভায় প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পত্রে তার সম্পত্তির হলফনামায় তিনি বলেছেন, তার হাতে এই মুহূর্তে নগদ এক রুপিও নেই। এবার তিনি পঞ্চমবারের মতো অসম থেকে রাজ্যসভার সদস্য হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

সম্পদ বিবরণীতে বলেছেন, চণ্ডীগড় ও দিল্লিতে তার দু’টি বাড়ি আছে। এর মূল্য ৭ কোটি ৫২ লাখ ৫০ হাজার রুপি। এছাড়া আছে একটি মারুতি গাড়ি। তা-ও অনেক পুরনো। ২০০৮ সালে ব্যাংকে তার আমানত ছিল ২ কোটি ৪৪ লাখ ৪৬ হাজার ৯৮৬ রুপি। এখন সেই অর্থ বেড়ে হয়েছে ৩ কোটি ৪৩ লাখ ৪৩ হাজার ৭২ রুপি। তার স্ত্রীর রয়েছে ১৫০.৮ গ্রাম স্বর্ণ ও নগদ ২০ হাজার রুপি।

১৯৯১ সালে রাজনীতিতে পা রাখার পর থেকে এই রাজ্য  থেকেই সংসদে প্রতিনিধিত্ব করছেন মনমোহন সিং। এই মুহূর্তে অসম থেকে দু’টি শূন্য পদ রয়েছে সংসদের উচ্চকক্ষ রাজ্যসভায়। জুন মাসের ১৪ তারিখ প্রধানমন্ত্রীর সংসদ সদস্য পদের মেয়াদ  শেষ হচ্ছে। অসম গণপরিষদের সংসদ সদস্য কুমার দীপক দাসের মেয়াদ শেষ হচ্ছে একই সময়ে।

কংগ্রেস নেত্রী তথা রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী হিতেশ্বর সাইকিয়ার স্ত্রী হেমপ্রভা সাইকিয়া দ্বিতীয় পদটির দৌড়ে এগিয়ে রয়েছেন। তাৎপর্যপূর্ণ ভাবে, নির্বাচনী প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য সাইকিয়ার বাসভবনটাই ভাড়া নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। মনমোহন সিংয়ের জয়ের বিষয়ে নিশ্চিত কংগ্রেস শিবির।

রাজনৈতিক মহলের মতে, প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে প্রার্থী দেয়ার সম্ভাবনা নেই অন্য রাজনৈতিক দলগুলোর। মনোনয়ন জমা দেয়ার  শেষ দিন ২০শে মে। ৩০শে মে নির্বাচনের দিন ধার্য হয়েছে ওই কেন্দ্রে।

এদিকে ভারতের পরবর্তী লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেস ফের মনমোহন সিংকে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তুলে ধরবে কিনা তা নিয়ে অনিশ্চয়তার মধ্যেই অসম বিধানসভা কেন্দ্র থেকে ফের নির্বাচিত হওয়ার লক্ষ্যে বুধবার মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং। তিনি রাজ্যসভায় পঞ্চমবারের জন্য প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

 

 

 

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

আরও দেখুন...

Close
ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close