Featuredদুনিয়া জুড়ে

ব্রিটিশ নির্বাচনে মনোনয়ন প্রত্যাশিদের দৌড়ে টিউলিপ

 

 

 

 

 

 

 

 

 

২০১৫ সালে অনুষ্ঠেয় যুক্তরাজ্যের আগামী সাধারণ নির্বাচনকে সামনে রেখে ১৪ জুলাই স্থানীয় প্রতিনিধিদের ভোটে লন্ডনের হ্যাম্পস্টেড ও কিলবার্ন আসনে প্রার্থী মনোনীত করা হবে। আসন্ন এই সাধারণ নির্বাচনে অংশ নিতে বিরোধী দল লেবার পার্টির পক্ষ থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাতনি ও শেখ রেহানার মেয়ে টিউলিপ সিদ্দিক।

এই আসনে লেবার পার্টির পক্ষ থেকে মনোনয়ন দৌড়ে ক্যামডেনের কাউন্সিলর টিউলিপের সঙ্গে আছেন আরো দুই প্রার্থী। তারা হলেন- ক্যামডেনের আরেক কাউন্সিলর স্যালি গিমসন ও হ্যাকনি বারার ডেপুটি মেয়র সোফি লিন্ডেন। বৃহস্পতিবার লন্ডনের ইভনিং স্ট্যান্ডার্ডের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, এই তিনজনের মধ্যে টিউলিপই এগিয়ে আছেন। হ্যাম্পস্টেডে লেবার পার্টির মনোনয়নপ্রত্যাশী বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর ভাগ্নি শিরোনামে ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, ১৯৯২ সাল থেকেই এ আসনে লেবার দলের হয়ে জয় পেয়ে আসছিলেন সাবেক অভিনেত্রী গ্লেন্ড জ্যাকসন। তিনি সম্প্রতি অবসরে যাওয়ার ঘোষণা দেয়ায় নতুন প্রার্থীকে মনোনয়ন দেয়া হবে এবার।

ইভনিং স্ট্যান্ডার্ডকে টিউলিপ বলেছেন, স্থানীয় জনগণের সঙ্গে সম্পৃক্ততাই তাকে পার্লামেন্ট নির্বাচনে লড়ার উৎসাহ যুগিয়েছে। ২০১০ সালে দলের নেতৃত্ব নির্বাচনে অ্যাড মিলিব্যান্ডের পক্ষে কাজ করার সুবাদে এবার মনোনয়ন পাওয়ার ব্যাপারেও যথেষ্ট আশাবাদী টিউলিপ। সম্প্রতি ক্রিশ্চিয়ান পার্সি নামের এক ব্রিটিশ ব্যবস্থাপনা পরামর্শকের পরিণয়সূত্রে আবদ্ধ হয়েছেন বঙ্গবন্ধুর নাতনি টিউলিপ। গত সপ্তাহে লন্ডনে তাদের বিবাহোত্তর সংবর্ধনায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও উপস্থিত ছিলেন।

২০১০ সালের মে মাসে ক্যামডেন কাউন্সিলে প্রথম বাঙালি নারী হিসাবে কাউন্সিলর নির্বাচিত হন টিউলিপ। শফিক সিদ্দিক ও শেখ রেহানার মেয়ে টিউলিপ লেবার পার্টির একজন সক্রিয় কর্মী। তিনি ইউনিভার্সিটি কলেজ অব লন্ডন থেকে ইংরেজি সাহিত্যে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি নিয়েছেন। কিংস কলেজ থেকে রাজনীতি ও সরকারি নীতি বিষয়ে আরেকটি স্নাতকোত্তর ডিগ্রি নিয়েছেন তিনি।

 

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

আরও দেখুন...

Close
ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close