Featuredঅন্যান্য

১৬০ বার শুনে ভিন্ন ভাষার একটি নতুন শব্দ শেখা সম্ভব

 

 

 

 

 

 

 

 

 

সম্পূর্ণ ভিন্ন কোন ভাষার একটি শব্দ মনে রাখা যে কোন মানুষের জন্যই কঠিন। যে কয়েকটি ভাষার সঙ্গে মানুষ পরিচিত, সে ভাষাগুলোর ক্ষেত্রে নতুন শব্দ শিখতে খুব একটা কষ্ট করতে হয় না। তবে কোনদিন শোনা হয়নি এমন একটি ভাষার অপরিচিত শব্দ মনে রাখা ঠিক কতোটা কঠিন বা সহজ, তা জানতে একটি গবেষণা পরিচালিত হয়েছে।

গবেষকরা বলছেন, ইচ্ছে করলেই ১৫ মিনিটের মধ্যে যে কোন ব্যক্তি অন্য কোন ভাষার একটি শব্দ একেবারে মাথার মধ্যে গেঁথে ফেলতে পারেন। তবে তা সম্পূর্ণরূপে আত্মস্থ করতে ওই ব্যক্তিকে ১৫ মিনিটের মধ্যে ১৬০ বার শব্দটি শুনতে হবে। ক্যামব্রিজ ইউনিভার্সিটির স্নায়ুবিদরা গবেষণায় দেখেছেন, প্রতিটি অপরিচিত শব্দ শোনার পর মানুষের মস্তিষ্কে নিউরনের নতুন একটি নেটওয়ার্ক তৈরি হয়। এই নেটওয়ার্কেই জমা হয় নতুন শেখা শব্দটি।

গবেষক দলটির অন্যতম সদস্য ড. ইউরি স্টাইরভ জানান, গবেষণাটি পরিচালনার জন্য ১৬ জন স্বেচ্ছাসেবীর মাথায় ইলেক্ট্রোড বসিয়ে মস্তিষ্কের গতি-প্রকৃতি রেকর্ড করা হয়। এ জন্য প্রথমে পরিচিত একটি শব্দ শোনানো হয় প্রত্যেককে। স্ক্যানারে তাদের মস্তিষ্কের পরিবর্তনগুলো ধারণ করে একটি গ্রাফ তৈরি করা হয়। এরপর প্রত্যেককে বিদেশী ভাষার একটি করে অপরিচিত শব্দ শুনতে দেয়া হয়। এতে তাদের মস্তিষ্কে সম্পূর্ণ ভিন্ন কার্যক্রম বা প্রতিক্রিয়া পরিলক্ষিত হয়। সে শব্দটিই বারবার শোনানো হয় তাদের। প্রতিবার শোনার পর চেনা-অচেনা শব্দের মধ্যে পার্থক্য কমতে থাকে। এভাবে ১৪ মিনিটের একটু বেশি সময়ে ১৬০ বার শব্দটি শোনার পর পরিচিত ও অপরিচিত শব্দের ক্ষেত্রে একই রকম প্রতিক্রিয়া দেখাতে শুরু করে স্বেচ্ছাসেবীদের মস্তিষ্ক।

এ গবেষণায় প্রাপ্ত ফলকে অনেক বড় কোন ক্ষেত্রে কাজে লাগাতে চায় গবেষক দলটি। দুর্ঘটনায় স্মৃতি হারানো বা পক্ষাঘাতে আক্রান্ত ব্যক্তিদের চিকিৎসায় এ পদ্ধতি কতোটা কার্যকর ভূমিকা রাখতে পারে, সেটাই এখন পরীক্ষা করছেন তারা।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close