গ্যালারী থেকে

দেশের সবচেয়ে সুন্দর ক্রিকেট গ্রাউন্ড সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়াম

গ্যালারী থেকে: আসন্ন ২০১৪ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ক্রিকেটের অন্যতম ভেন্যু লাক্কাতুরাস্থ সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট স্টেডিয়াম পরিদর্শন করে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) নবনির্বাচিত নাজমুল হাসান পাপন। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টায় হেলিকপ্টারযোগে সিলেট এসে পৌছান বিসিবি সভাপতি।

এ সময় নাজমুল হাসান পাপনের সঙ্গে বিসিবি পরিচালক মাহবুব আনাম, লোকমান হোসেন ভূঁইয়া, শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, সিলেট সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, জেলা ক্রীড়া সংস্থার ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌস চৌধুরী রুহেল, সিলেট ডিএফ’র সভাপতি মাহি উদ্দিন সেলিম উপস্থিত ছিলেন।  প্রায় ২ ঘন্টা তিনি নির্মাণাধীন সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অবস্থান করেন এবং গ্র্যান্ডস্ট্যান্ড, গ্রীণ গ্যালারী, মিডিয়া সেন্টার, কার পার্কিং, গ্যালারী, ইনডোরসহ বিভিন্ন অবকাঠামো ঘুরে দেখেন। পরে তিনি সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়ামের নির্মাণ কাজের অগ্রগতিতে তার সন্তুষ্টির কথা জানান।

প্রসঙ্গত, ঢাকা ও চট্টগ্রামের পাশাপাশি আসন্ন ২০১৪ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বিভাগীয় শহর সিলেট। সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বেশক’টি ম্যাচ। আর বিশ্বকাপকে সামনে রেখে সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়ামকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ভেন্যু হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে গত জুন মাসে শুরু হওয়া ৮৭ কোটি টাকার ব্যয় সম্বলিত প্রকল্পের কাজ প্রায় শেষের পথে। সিলেটের অগণিত ক্রিকেটপ্রেমী মানুষ এখন সিলেটে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপকে স্বাগত জানাতে প্রস্তত। তবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগেই ঘরের মাঠে বসে শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের মধ্যকার আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ম্যাচ দেখার সৌভাগ্য হবে সিলেটবাসীর। আগামী বছরের ১৭ ফেব্র“য়ারি শক্তিশালী শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের মধ্যকার ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ওয়ানডে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নির্বাচিত হওয়ার পর প্রথমবারের মতো সিলেট সফর আসেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। গতকাল সকাল থেকেই তাই সিলেটের বিভিন্নস্তরের ক্রীড়ামোদি মানুষ বিসিবি সভাপতিকে স্বাগত জানাতে অধীর আগ্রহ নিয়ে অপেক্ষা করতে থাকেন। সকাল সাড়ে ১১টায় সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়াম মাঠে বিসিবি সভাপতিকে বহনকারী হেলিকপ্টারটি অবতরণ করে। সিলেট বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার কর্মকর্তাবৃন্দ এ সময় ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) নবনির্বাচিত সভাপতিকে।

প্রায় দু’ঘন্টার পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামকে দেশের সবচেয়ে সেরা স্টেডিয়াম হিসেবে অবহিত করে বিসিবি সভাপতি বলেন, ‘বিসিবির এডহক কমিটির দায়িত্ব নেয়ার পর টি-টোয়েন্টি বিশকাপের জন্য আমরা কয়েকটি নতুন স্টেডিয়াম করতে চেয়েছিলাম। পরিকল্পনা অনুযায়ী সিলেট ও কক্সবাজারে আন্তর্জাতিক ভেন্যু হয়েছে। তবে কক্সবাজারকে আমরা টি-টোয়েন্টির ভেন্যূ হিসেবে রাখতে পারিনি। সিলেটকে ভেন্যূ হিসবে রাখা হয়েছে। চা বাগান আর টিলা ঘেরা সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়াম ইতিমধ্যেই দেশের সুন্দরতম ক্রিকেট ভেন্যু হিসেবে সবার দৃর্ষ্টি কেঁড়েছে।

আসছে ১লা ডিসেম্বর সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়াম চূড়ান্ত পরিদর্শনে আসবে আইসিসি পরিদর্শক দল। আশা করছি ঐদিনই সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়াম আইসিসির কাছ থেকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ আয়োজনের চুড়ান্ত ছাড়পত্র লাভ করবে। তিনি বলেন, আমি এর আগেও একবার সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট স্টেডিয়াম পরিদর্শন করে গিয়েছিলাম। সে তুলনায় স্টেডিয়াম এখন অনেকটাই বদলে গেছে। বাংলাদেশে যতো স্টেডিয়াম আছে সবগুলোর চেয়ে সুন্দর সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়াম। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যময় এমন স্টেডিয়াম বিশ্বে খুব কমই রয়েছে।’ ফেব্র“য়ারিতে শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের মধ্যে একটি আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে বলে তিনি ঘোষণা করেন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close