জাতীয়

নির্বাচনী ব্যয় ৩০০ কোটি টাকা চূড়ান্ত

নির্বাচন কমিশন দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন আয়োজনের ব্যয় বাবদ ৩০০ কোটি টাকা চূড়ান্ত করেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার এটি চূড়ান্ত করা হয় বলে বার্তা সংস্থা ইউএনবির খবরে জানানো হয়।

এর মধ্যে ১৪৭ কোটি টাকা নির্বাচন পরিচালনার জন্য ও ১৪৪ কোটি টাকা আইনশৃঙ্খলা প্রয়োগকারী সংস্থা ও সশস্ত্র বাহিনীর জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে। এর আগে নির্বাচন কমিশন এই নির্বাচনের জন্য ব্যয় বাবদ ৫০০ কোটি টাকা নির্ধারণ করেছিল। কিন্তু এখন ৩০০ আসনের ১৫৪টি আসনে ভোট গ্রহণের প্রয়োজন না থাকায় বাজেট ২৯১ কোটি টাকায় নেমে এসেছে। উল্লিখিত ১৫৪ আসনে একক প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। এখন ৫ জানুয়ারি বাকি ১৪৬টি আসনে নির্বাচন হবে।

কর্মকর্তারা জানান, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ এবং পাঁচটি আইন প্রয়োগকারী সংস্থা—পুলিশ, র্যাব, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড, বিজিবি এবং আনসার ও ভিডিপি—তাদের ব্যয়ের জন্য ২৮৮ কোটি ৭২ লাখ টাকা চেয়েছিল, কিন্তু নির্বাচন কমিশন তাদের জন্য মাত্র ১৪৪ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে। কমিশন সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ ছাড়া সংস্থাগুলোর প্রস্তাব করা অর্থের পরিমাণ প্রায় দুই-তৃতীয়াংশ কমিয়েছে। সশস্ত্র বাহিনীর প্রস্তাবিত অর্থ অক্ষুণ্ন রাখা হয়েছে। তাদের জন্য ৫৪ কোটি ২৭ লাখ টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে।

অন্যদিকে, পুলিশ ও র্যাবের পক্ষ থেকে ১৪৮ কোটি টাকার প্রস্তাব করা হলে কমিশন তা কমিয়ে ৪১ কোটি টাকায় নিয়ে আসে। বিজিবি ১৩ কোটি ৯০ লাখ টাকার প্রস্তাব করলে তাদের দেওয়া হবে চার কোটি  টাকা এবং আনসার ও ভিডিপি প্রস্তাবিত ৭১ কোটি ৮৭ লাখ টাকার বিপরীতে পাচ্ছে ৪৪ কোটি ৩৪ লাখ টাকা।

এ ছাড়া স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ৩০ লাখ টাকা দাবির বিপরীতে এক লাখ টাকা এবং কোস্টগার্ডের ৬৬ লাখ ১৩ হাজার টাকার বিপরীতে আট লাখ ১২ হাজার টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। ইতিমধ্যে সারা দেশে সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে। তারা ৯ জানুয়ারি পর্যন্ত মোতায়েন থাকবে। বিজিবি ও কোস্টগার্ডের সদস্যরা ৩ থেকে ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত মোতায়েন থাকবে।

২০০৮ সালে অনুষ্ঠিত নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ব্যয় ছিল ১৬৫ কোটি টাকা। আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় ওই সময় ব্যয় ছিল ৯৭ কোটি ৭৯ লাখ টাকা। ২০০১ সালে এই অষ্টম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ব্যয় ছিল ৭২ কোটি ৭১ লাখ টাকা। বিএনপির নেতৃত্বাধীন ১৮-দলীয় জোট দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন বর্জন করেছে। এতে ১৪৬টি আসনে এবার ৩৮৬ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। নিবন্ধিত ৪০টি রাজনৈতিক দলের মধ্যে ১২টি দল এই নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close