এশিয়া জুড়ে

ভারতে ভোটের রেজিস্ট্রেশনে গুগল ব্যবহার

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: ভারতের নির্বাচন কমিশন (ইসি) গণতান্ত্রিক চর্চায় অনলাইনে ভোটার রেজিস্ট্রেশন ও সহজীকরণ সেবা পরিচালনার জন্য যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক ইন্টারনেট জায়ান্ট গুগলের সঙ্গে সমঝোতা (কি-পার্টনারশিপ) চুক্তি করেছে। ভারতের ইসি এবং গুগলের মধ্যে অনলাইনে ভোটার তালিকা হালনাগাদ করা চুক্তি হয়েছে। জানুয়ারি মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকেই এ পদ্ধতি ‘কর্মক্ষম’ হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

একটি সমঝোতা অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে আগামী ছয় মাস ধরে গুগল অনলাইনে ভারতীয় ভোটারদের তালিকাভুক্তি অবস্থা চেক এবং গুগল ম্যাপস ব্যবহার করে দিকনির্দেশনা ছাড়াও নির্দিষ্ট ভোটকেন্দ্র, ভোটারদের দিকনির্দেশনা, গুগল সার্চ ইঞ্জিনে ভারতের ইসির তথ্য তুলে ধরবে। সামাজিক দায়িত্বের (সিএসআর) অংশীদারিত্বের অংশ হিসেবে গুগল অনলাইনে নতুন ভোটার নিবন্ধন এবং সুষ্ঠু ভোট পরিচালনে নথিভুক্ত ঠিকানা চেক করার কাজ করবে আগামী জুন অবধি।

গুগল সহায়তায় ভারতীয় ভোটাররা বিশ্বব্যাপী নেটওয়ার্কে তথ্য সংরক্ষণ এবং দিকনির্দেশনা পাবেন। এ পদ্ধতিতে প্রাপ্ত তথ্য ভবিষ্যতে রেফারেন্স হিসেবে কাজ করবে। গুগল এ সেবার জন্য সম্ভাব্য ব্যয় ৫০ হাজার ডলার (৩০ লাখ রুপি) নির্ধারণ করেছে। তবে এ জন্য ভারত সরকারের কাছ থেকে কোনো অর্থ নেবে না গুগল। একে করপোরেট সামাজিক দায়িত্ব (সিএসআর) বাজেট থেকে কর্তন হিসেবে দেখানো হবে। ইসি ভোটারদের তথ্য অনলাইন তালিকাভুক্তি, পরিচালনা এবং ভোটকেন্দ্র ছাড়াও হালনাগাদ ভোটার তালিকার একটি নির্ভরযোগ্য নমুনার অনুসন্ধান করতে উচ্চ কারিগরি ও পেশাগত দক্ষতা নিশ্চিতে গুগল কাজ করবে।

এ বিশেষ পদ্ধতি অনলাইনে সার্চযোগ্য ভোটার তালিকা তৈরিতে শুধু নাম, ইপিআইসি নম্বর এবং হালনাগাদ তথ্য নিবন্ধন করলেই যেকোনো ভোটার সুর্নিদিষ্ট ভোটকেন্দ্র, ভোটের সঠিক দিনক্ষণ এবং ভোটকেন্দ্রের অবস্থান সম্পর্কে সুনির্দিষ্ট তথ্য পাবে। অতীতে লোকসভা নির্বাচনে ছোট আকারে গুগল ভারতের ইসিকে এ ধরনের কারিগরি সহায়তা করেছে। গুগল সার্চ ইঞ্জিনে এখন গুগল ম্যাপস জুড়ে যাওয়ায় দ্রুত স্থানভিত্তিক তথ্য পাওয়া সম্ভব। ভোটের দিন সম্পর্কে সঠিক নির্দেশনা কীভাবে পাওয় যাবে তা নির্ভরযোগ্য করে গুগল। এমন তথ্য দিয়েছেন ভারতের ইসির একজন মুখপাত্র।

গুগল সিএসআর বাধ্যবাধকতার অংশ হিসেবে বিশ্বের ১০০টি দেশজুড়ে অনুরূপ সেবার প্রস্তাব দিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র কমিশনের ওয়েবসাইট, বিশেষ করে ভোটার তালিকাভুক্তি ও সহজীকরণ নেভিগেশন অনলাইনে সেবার উন্নত ব্যবস্থাপনার জন্য গুগল বিশ্বব্যাপী এ ধরনের কাজে সরকারগুলোতে কারিগরি সহায়তা করছে।

আগামী মে মাসে ভারতে অনুষ্ঠেয় সাধারণ নির্বাচনে ভোটারদের সঙ্গে তার অনলাইন ইন্টারফেস ব্যবস্থাপনায় গুগল বিশ্বব্যাপী নেটওয়ার্ককে কাজ লাগাবে। এ সাধারণ নির্বাচনের ফলাফল প্রচারের জন্য গুগলের বিশ্বব্যাপী নেটওয়ার্ক এবং সার্ভারের সহায়তা নেবে ভারত সরকার। শুধু গুগল নয়, যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক আইটি প্রতিষ্ঠান অ্যাকামাই’র সঙ্গেও চুক্তি করেছে ভারতের নির্বাচন কমিশন। ভারতের পাঁচটি রাজ্যে ফলাফল প্রদানে এ প্রতিষ্ঠানটি ইসিকে সহায়তা করবে। এর আগে বিধানসভা নির্বাচনেও এ প্রতিষ্ঠানটি কাজ করেছে।

২০০৯ সালের লোকসভ‍া নির্বাচনে দুটি সার্ভারের মাধ্যমে ভারতের ইসিকে কিছু নির্বাচনী কাজে সহায়তা করে যুক্তরাষ্ট্রের এ প্রতিষ্ঠান। এবারে অনলাইনে বিশ্বব্যাপী ভারতের নির্বাচনী ফলাফল প্রচারে অ্যাকামাইয়ের ২৭২টি সার্ভার সক্রিয় থাকবে। এ ছাড়াও প্রতিমুহূর্তে লাখ লাখ ভোটারের চাপ সামলে নিতে এবার গুগলের সার্ভারের সহায়তাও নিচ্ছে ভারতের ইসি।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close