সিলেট থেকে

শাবিতে শিবির-ছাত্রলীগ সংঘর্ষ

শীর্ষবিন্দু নিউজ: সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ইসলামী ছাত্রশিবিরের তাণ্ডবের পর সংগঠনটির নেতাদের আসামি করে দুটি মামলা হয়েছে। রোববার রাতে প্রশাসনের পক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিবন্ধক মো. ইসফাকুল হক ও জালালাবাদ থানার উপ পরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ মামলা দুটি করেন।

পুলিশের মামলায় বিশ্ববিদ্যালয় শিবিরের সাধারণ সম্পাদক ও সভাপতিসহ ৭৮ জনের নাম উল্লেখ  করে অজ্ঞাতপরিচয় আরো ৭০/৮০ জনকে আসামি করা হয়েছে। আর বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে করা মামলায় বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রশিবিরের সাধারণ সম্পাদক এহসানুল করিম  ও ক্যাম্পাস সভাপতি নাসিম হোসেনের নাম উল্লেখসহ শতাধিক ব্যক্তিকে আসামি করা হয়েছে বলে জানান জালালাবাদ থানার ওসি গওসুল হোসেন।
রোববার বেলা সোয়া ৩টার দিকে ক্যাম্পাসের ফুড কোর্টে অবস্থানরত ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের ওপর অতর্কিতে হামলা চালায় শিবির কর্মীরা। এক পর্যায়ে ক্যাম্পাসের বিভিন্ন অংশে সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়ে এবং প্রায় আধ ঘণ্টা দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া চলে। পরে ছাত্রলীগ কর্মীরা পিছু হটে গেলে শিবির কর্মীরা ভাংচুর শুরু করে। পুলিশ প্রথমে কাঁদুনে গ্যাস ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে চাইলেও ব্যর্থ হয়ে পিছু হটে যায়। পরে সাঁজোয়া যান নিয়ে বাড়তি পুলিশ এলে শিবিরকর্মীরা সরে পড়ে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সংঘর্ষের সময় শিবিরকর্মীরা একের পর এক হাতবোমা ফাটায়। এক পর্যায়ে তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সাতটি, শিক্ষকদের দুটি বাস, দুটি মাইক্রোবাস ও দুটি প্রাইভেটকারে ভাংচুর করে। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ভবন, লাইব্রেরি ভবন এবং একাডেমিক ভবন এ, বি, ডি, ও ই তে জানালা-দরজা, কলাপসিবল গেট ভাংচুর করে তারা। এছাড়া বিভিন্ন একাডেমিক ভবনের কম্পিউটারও ভাংচুর করা হয়। শিবিরের এই তাণ্ডবে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক কোটি টাকারও বেশি সম্পদের ক্ষতি হয়েছে বলে জানা যায়।

 

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close