বানিজ্য

দেশীয় সাত পর্যবেক্ষক পোশাক কারখানা পরিদর্শন করবে

শীর্ষবিন্দু নিউজ: বাংলাদেশের সাতটি পর্যবেক্ষক প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে ইউরোপীয় ক্রেতা জোট অ্যালায়েন্স ৮০০ পোশাক কারখানা পরিদর্শন করবে বলে জানিয়েছেন বিজিএমইএ সভাপতি মো. আতিকুল ইসলাম। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বিজিএমইএর নুরুল কাদের মিলনায়তনে এক মতবিনিময় সভা শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা জানান।

দেশীয় সাত পর্যবেক্ষক প্রতিষ্ঠান হলো- ব্যুরো ভ্যারাইটিজ, শহীদুল্লাহ অ্যাসোসিয়েট, উত্তোরণ, এমকে, বিডি টেকনোলজি এবং ইআইএমএ। পরিদর্শন শেষে ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে প্রতিবেদন দেবে এই প্রতিষ্ঠান। পোশাক কারখানায় অগ্নি, বিদ্যুৎ ও ভবন নিরাপত্তা নিয়ে অ্যালায়েন্স প্রতিনিধিদের সঙ্গে এ মত বিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় আগামী বাজেটে তৈরি পোশাক শিল্পের জন্য বিশেষ বরাদ্দ রাখার দাবি জানিয়েছেন পোশাক মালিকদের সমিতি বিজিএমইএর সভাপতি।

বিজিএমইএ সভাপতি আতিকুল ইসলাম বলেন, মার্কিন ক্রেতাদের সংগঠন অ্যাকর্ড ১হাজার ৮০০ কারখানা পরিদর্শন করবে। অ্যাকর্ড গত ২০ ও অ্যালায়েন্স ২৬ ফেব্রুয়ারি থেকে পরিদর্শন শুরু করেছে। দেশীয় সাতটি প্রতিষ্ঠানকে ন্যাশনাল অ্যাকশান প্ল্যানের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থা (আইএলও) ও বুয়েট তদারকি করবে। অ্যালায়েন্স ওয়ালমার্ট, গ্যাপ, টার্গেট, জেসিফেনির মাধ্যমে ইতোমধ্যে ২২২টি কারখানা পরিদর্শন করেছে বলেও জানান তিনি।

আতিকুল ইসলাম বলেন, অগ্নি-বিদ্যুৎ ও ভবন নিরাপত্তা সামগ্রীর ওপর শুল্ক প্রত্যাহারে ইতোমধ্যে বাণিজ্যমন্ত্রী আশ্বাস দিয়েছেন। তবে বাজেটের আগে এ সুবিধা না পেলে কারখানা পরিদর্শনে মালিকরা সমস্যায় পড়বে। পরিদর্শক দল এসময় কোনো ভোগান্তির শিকার হয়নি জানিয়ে বিজিএমইএ’র সভাপতি আতিকুল ইসলাম বলেন, এই সাত প্রতিষ্ঠানের বাইরে কেউ পরিদর্শনের নামে কারখানা মালিকদের হয়রানি করবে না। যেসব কারখানা অগ্নি নির্বাপনসহ নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করেছে ‍তাদেরকে অ্যালায়েন্স বড় ছাড় দেবে বলেও তিনি ঘোষণা দিয়েছেন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close