সিলেট থেকে

সিলেটে গুণীজন সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী

শীর্ষবিন্দু নিউজ: অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, স্বাধীনতার মাসে গুণীজনদের হাতে সম্মাননা স্মারক তুলে দিতে পেরে নিজেকে ধন্য মনে করছি। কারণ সমাজে তাদের অবদান অনেক বেশি। তারা তদের মেধা, মনন ও চিন্তাশক্তি নিয়ে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যান। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সিলেট নগরীর রিকাবীবাজারস্থ কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে সম্মিলিত নাট্য পরিষদ আয়োজিত গুণীজন সম্মাননা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সিলেট সিটি করপোরেশনের সহযোগিতায় আয়োজিত সম্মাননা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সিলেট সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সভাপতি অনুপ কুমার দেব। সিলেট সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্তের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ও সম্মিলিত নাট্য পরিষদের প্রধান পরিচালক নিজামউদ্দিন লস্কর।

অর্থমন্ত্রী বলেন, সিলেটের সাংস্কৃতিক আন্দোলনে সম্মিলিত নাট্য পরিষদ আজ একটি গৌরবজনক স্থানে পৌঁছেছে। নাট্য আন্দোলন সমাজের কুসংস্কার এবং উন্মোচনে গুরুত্বপূর্ন ভুমিকা পালন করে। নাট্যকর্মী কাজী আয়েশা বেগমের নাম উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী বলেন, পূর্বে আমাদের সময়ে ছেলেরা মেয়েদের ভুমিকা পালন করত। কারণ নাটক করতে মেয়েরা আসত না। তখন নাটকে ছেলেরা মেয়ে সেজে অভিনয় করতে হত। কিন্তু আজ ছেলেদের চেয়েও মেয়েরা এগিয়ে রয়েছে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতকে আলোকিত সিলেটের স্রষ্টা বলে আখ্যায়িত করেন। তিনি বলেন, সিলেটে নাটক ও সাংস্কুতিক কর্মকান্ডের জন্য আলাদা কোন মঞ্চ না থাকায় সুষ্ঠভাবে প্রশিক্ষণ দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। তাই অর্থমন্ত্রীর কাছে সিলেট নাট্য পরিষদকে একটি মঞ্চ করে দেওয়ার জন্য অনুরোধ জানান মেয়র।

অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত ভাষা সৈনিক অ্যাডভোকেট মনির উদ্দিন আহমদ, মুক্তিযোদ্ধা পুরঞ্জয় চক্রবর্তী বাবলা, নাট্যকর্মী কাজী আয়শা বেগম ও শিশু সংগঠক তাজুল ইসলাম বাঙালির হাতে সম্মাননা স্মারক তুলে দেন। পরে সম্মাননা প্রাপ্ত গুনীজনরা তাদের অনুভুতি প্রকাশ করেন। অনুষ্ঠান শেষে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত সিলেট নাট্যালোকের পরিবেশনায় মেরাজ ফকিরের মা নাটকটি উপভোগ করেন। মাহবুব চৌধুরীর নিদের্শনায় নাটকটি রচনা করেছেন আব্দুল্লা আল মামুন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close