জাতীয়

এরশাদের আশা: মৃত্যুর পর স্মৃতিসৌধ হবে

শীর্ষবিন্দু নিউজ ডেস্ক: মৃত্যুর পরও যাতে মানুষ মনে রাখে, সেজন্য কবরে স্মৃতিসৌধ নির্মাণ করতে নেতাকর্মীদের নির্দেশ দিলেন সাবেক স্বৈরশাসক হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ। শুক্রবার ছোট ভাইয়ের স্মরণসভায় এসে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এরশাদ আবেগ আপ্লুত কণ্ঠে নেতা-কর্মীদের এ কথা বলেন।

এরশাদ বলেন, আমি মারা যাওয়ার পর তোমরা আমার জন্য স্মৃতিসৌধ নির্মাণ করবে। মানুষ যেন আমাকে স্মরণ করতে পারে। শুক্রবার জাতীয় পার্টির কাকরাইল কার্যালয়ে আয়োজিত স্মরণসভায় ৮৫ বছর বয়সী এরশাদ বলেন, অনেকে মারা গেছেন, বড় বড় কবর ‍হয়েছে। সেখানে মানুষ ফুল দিতে যায়। আমার বাবা-মায়ের কবরের পাশে একটি কবরের জায়গা ছিল। আমার ইচ্ছে ছিল আমার মৃত্যুর পর আমাকে যেন সেখানেই কবর দেয়া হয়। কিন্তু আমার ছোট ভাই আগে চলে যাওয়ায় সে জায়গায় তাকে কবর দেয়া হয়েছে। এখন আমার কবর কোথায় হবে- জানি না।
গত ২ সেপ্টেম্বর রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান এরশাদের ছোটভাই মোজাম্মেল হোসেন লালু। তিনি বার্ধক্যজনিত বিভিন্ন সমস্যায় ভুগছিলেন। দৃশ্যত দুঃখ ভারাক্রান্ত এরশাদ ছোট ভাইয়ের কথাও স্মরণ করেন। আমাদের পরিবারে সে সবচেয়ে ভাল ছিল। নিরহঙ্কার ও নির্লোভ মানুষ ছিল। সবাই তার জন্য দোয়া করবেন, সে যেন জান্নাতবাসী হয়। ১৯৯০ এর দশকে স্বৈরাচারবিরোধী গণআন্দোলনে ক্ষমতা ছাড়তে বাধ্য হওয়ার পর দীর্ঘদিন জেলে কাটানোর কথাও স্মরণ করেন প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত এরশাদ।

তিনি বলেন, আমি ক্ষমতা ছেড়ে দেয়ার পরে আমার পরিবারের ওপর যে নির্যাতন হয়েছে তা কখনো ভোলার নয়। আমার দুই ভাই সরকারি চাকরি করত। লালু ছিল জনতা ব্যাংকের এজিএম, আর কাদের ছিল একটি প্র্রতিষ্ঠানের পরিচালক। তাদের বাধ্যতামূলক অবসরে পাঠানো হয়েছে। আমাকে জেলে পাঠিয়ে আমার ছেলের জীবনও ধ্বংস করে দিয়েছে তারা। নব্বইয়ের গণঅভ্যুত্থানের পর এরশাদ গ্রেপ্তার হলে তার মুক্তির জন্য এরশাদ মুক্তি পরিষদ গঠন করেছিলেন তার ছোট ভাই লালু। সে সময় এরশাদের মুক্তির পক্ষে জনমত গঠনে রংপুর অঞ্চলে ব্যাপক গণসংযোগও করেন তিনি।

এরশাদ শোককে শক্তিতে পরিণত করে নেতা-কর্মীদের এগিয়ে যাওয়ার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, আমরা প্রতিশোধ নয়, প্রতিবাদ চাই। এজন্য আমরা ক্ষমতায় যেতে চাই। অন্যদের মধ্যে জাতীয় পার্টির মহাসচিব জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু ও সংসদ সদস্য সেলিম ওসমান এই স্মরণসভায় উপস্থিত ছিলেন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close