Featuredলন্ডন থেকে

ব্রিটিশ বাংলাদেশী মিনিক্যাব ড্রাইভার্স এসোসিয়েশনের ঈদ পূণর্মিলনী

শীর্ষবিন্দু নিউজ: ব্রিটিশ বাংলাদেশীদের অন্যতম বৃহত্তম সংগঠন মিনিক্যাব ড্রাইভার্স এসোসিয়েশনের দ্বিতীয় ঈদ পূণর্মিলনী অনুষ্ঠান পূর্ব লন্ডনের ওয়াটার লিলি ব্যাংকুয়েটিং হলে অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো। মঙ্গলবারে অনুষ্ঠিত ঈদ পূণর্মিলনীতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টাওয়ার হ্যামলেটস বারার এক্সিকিউটিভ মেয়র লুৎফুর রহমান।

কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে সন্ধ্যা ৭টায় অনুষ্ঠান শুরু হয়। কোরআন তেলাওয়াত করেন এম এ সালাম। এর পর কোরআনের আলোকে বক্তব্য রাখেন আল কোরআন একাডেমীর মাওলানা শফিকুর রহমান। এর পর মঞ্চে আসেন সংগঠনের সেক্রেটারি আলাউর রহমান খান শাহীন।তার পর পরই ১২ সদস্যের নতুন কার্যকরী কমিটিকে মঞ্চে নিয়ে অতিথিদের ও শুভানুধ্যায়ীদের সম্মুখে পরিচয় করিয়ে দেন সংগঠনের সিইও সাদেক আহমেদ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র লুতফুর রহমান বলেন, আমার অনেক বন্ধু, বান্ধব, আত্মীয় এই মিনিক্যাব চালিয়ে থাকেন। আমি এতে প্রাউড ফিল করি, একজন বাংলাদেশী হিসেবে, যারা পরিশ্রম করে সৎ উপায়ে জীবিকা উপার্জন করছেন, পরিবার পরিজন লালন পালন করছেন, ব্রিটেনের অর্থনীতিকে মজবুত করছেন ট্যাক্স সহ অন্যান্য কর পরিশোধের মাধ্যমে, সাথে সাথে দেশের আত্মীয় স্বজনকেও দেখা শুনা করছেন। মেয়র বলেন, আমি আনন্দিত হয়েছি, আপনাদের এই সম্মেলন ও সম্প্রীতি দেখে, আপনাদের চ্যারিটিমূলক কার্যক্রমের কথা শুনে।

এ সময় মেয়র লুতফুর রহমান আরো বলেন, বিগত নির্বাচনের সময়ে ব্যস্ততা ও পরবর্তী সময়ে আপনাদের সাথে আসতে পারিনি সেজন্য দুঃখ প্রকাশ করছি। তবে আপনাদের সাথে আমি সব সময় আছি। আপনাদের সমস্যা সমূহ আজকে শুনলাম, আপনাদের ন্যায্য দাবীসমূহ আন্তরিকতার সাথে সমাধানের চেষ্টা করবো এবং আমার অফিস আপনাদের সেবায় নিয়োজিত থাকবে সব সময়। গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি আর ঠাণ্ডা হাওয়া উপেক্ষা করে শতাধিক সদস্য, কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব, আর আমন্ত্রিত অতিথি সকলেই উপস্থিত হন পরিবার পরিজন সহ।এ সময় বেতার বাংলার এক্সিকিউটিভ ডাইরেক্টর জি এম নাজিম চৌধুরী, কাউন্সিলর ও বেতার বাংলার ডাইরেক্টর শেরওয়ান চোধুরীকে অতিথিদের দেখ ভালে ব্যস্ত দেখা যায়।

মেয়রের বক্তব্যের পরেই শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন আতিকুর রহমান। এর পর পরই শুরু হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এ সময় মঞ্চে গান পরিবেশন করেন সালমা আখতার, মহী উদ্দিন জিলু, শম্পা দেওয়ান, মিতু এবং অন্যরা।উপস্থিত আমন্ত্রিত অতিথি ও এসোসিয়েশনের সদস্য সকলেই গান উপভোগ করেন আনন্দ ও উৎসাহ নিয়ে। একে অন্যের সাথে এগিয়ে কুশল বিনিময় করতেও দেখা গেছে। অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে ছিলো এসোসিয়েশনের উদ্যোগে সকলকে রাতের সুস্বাদু খাবার পরিবেশন করা হয়। আর থেমে থেমে মঞ্চে গানও চলছিলো। অনুষ্ঠানটি যৌথভাবে উপস্থাপনায় ছিলেন নাজমা ঝুমা ও সাজিয়া স্নিগ্ধা।

প্রসঙ্গত: লন্ডনে ব্রিটিশ বাংলাদেশী মিনিক্যাব ড্রাইভার রেজিস্টার্ড আছেন প্রায় সাড়ে আট হাজারের মতো। এছাড়াও ব্যক্তিগত ও সমবায় এবং অন্যান্য উদ্যোগে আরো কিছু মিনিক্যাব ড্রাইভার রয়েছেন। সে সব মিলিয়ে লন্ডনে দশ হাজারের মতো আছেন। টিএলএফ রেজিস্ট্রেশন ভুক্ত বাংলাদেশী ৮ হাজার ৫ শত ট্যাক্সি ড্রাইভার লন্ডনে কর্মরত। পুরো ব্রিটেন ধরলে এই সংখ্যা আরো বৃদ্ধি পাবে। কেননা বার্মিংহাম, ম্যানচেস্টার, ব্রাডফোর্ড, নিউক্যাসল, লিডসে এখন প্রচুর বাংলাদেশী মিনিক্যাব চালিয়ে থাকেন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close