Americaযুক্তরাষ্ট্র জুড়ে

জেল থেকে ৯০ দিনের বিয়ের লাইসেন্স পেলেন যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি

৯০ দিনের বিয়ের লাইসেন্স পেলেন খুনি<!–

this is caption

–>

আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: চার্লস ম্যানসন। বয়স ৮০। যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি। ১৯৬৯ সালে যুক্তরাষ্ট্রের লসঅ্যাঞ্জেলসে সাত ব্যক্তি এবং অনাগত এক শিশুকে গুলি করে হত্যা করেছিলেন তিনি। নিহতদের মধ্যে অন্তসত্ত্বা অভিনেত্রী শ্যারন টেটও ছিলেন। মৃত্যুদণ্ডই তার প্রাপ্য ছিল। কিন্তু বেঁচে যান লসঅ্যাঞ্জেলসের আইনে মৃত্যুদণ্ডের বিধান না থাকায়।

সেই চার্লস ম্যানসনকে ২৬ বছর বয়সী এক নারীকে বিয়ের লাইসেন্স দেয়া হয়েছে। ওই তরুণী ম্যানসনকে জেলে দেখতে গিয়েছিলেন। নাম অ্যাফটন এলিন বার্টন। লাইসেন্সের মেয়াদ হবে ৯০ দিন।

এপির খবরে বলা হয়েছে, ১০ দিন আগে ম্যানসন ও মিস বার্টনের হাতে ওই লাইসেন্স তুলে দেয়া হয়। এতে বলা হয়, ৯ বছর আগে বার্টন ক্যালিফোর্নিয়ার করকোরান এলাকায় ম্যানসনকে কারাগারে দেখতে গিয়েছিলেন।

বার্টন সাংবাদিকদের বলেন, তিনি এবং ম্যানসন আগামী মাসে বিয়েবন্ধনে আবদ্ধ হতে যাচ্ছেন। এপিকে তিনি বলেন, যা আলোচনা হচ্ছে সবই সত্য। আগামী মাসেই তা ঘটতে যাচ্ছে। আমি ম্যানসনকে ভালোবাসি।

চার্লস ম্যানসন ছিলেন একটি গোষ্ঠীর ধর্মীয় নেতা। তার অনুসারীরা ‘ম্যানসন ফ্যামিল’ নামেই পরিচিত। ১৯৬৯ সালের আগস্টে ২ রাতে তিনি ছুরিকাঘাত ও গুলি চালিয়ে ৭ জনকে হত্যা করেন। গোষ্ঠীগত সহিংসতা ছড়িয়ে দিতেই ওই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়েছিল।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close