Featuredলন্ডন থেকে

যথাযথ মর্যাদায় বাংলাদেশের স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপন করেছে লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশন

নিউজ ডেস্ক: যথাযথ মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যের সাথে বাংলাদেশের ৪৫তম স্বাধীনতা এবং জাতীয় দিবস উদযাপন করেছে লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশন। এ উপলক্ষ্যে, ২৬ মার্চ সকালে হাইকমিশন প্রাঙ্গনে হাইকমিশনের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের উপস্থিতিতে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন মান্যবর হাইকমিশনার জনাব মোঃ আব্দুল হান্নান। এরপর, দিবসটি উপলক্ষ্যে মহামান্য রাষ্ট্রপতি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী এবং মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর প্রদত্ত বাণী পাঠ করা হয়।

মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষ্যে হাইকমিশন কর্তৃক ২৬ মার্চ সন্ধ্যায় লন্ডনের কেনসিংটন টাউন হলে একটি সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। মান্যবর হাইকমিশনার জনাব মোঃ আব্দুল হান্নান আমন্ত্রিত সম্মানিত অতিথিবৃন্দকে স্বাগত জানান এবং এরপর প্রায় আটশত আমন্ত্রিত অতিথির উপস্থিতিতে জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে এই অনুষ্ঠান শুরু হয়। এরপর, স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস এবং মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনা-নির্ভর মনোজ্ঞ সাংষ্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

মান্যবর হাইকমিশনার তাঁর বক্তব্যের প্রারম্ভে হাজার বছরের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অবদানকে স্মরণ করেন। তিনি স্মরণ করেন, দেশ ও বিদেশে অবস্থানরত প্রত্যেক নর-নারী যারা বাংলাদেশের জন্যে ১৯৭১ সালে চরম আত্মত্যাগ স্বীকার করেছিলেন। তিনি মুক্তিযুদ্ধে বৃটেনে বসবাসরত বাংলাদেশী ও বিদেশী বন্ধুদের অনন্য ভূমিকার কথা বিশেষ ভাবে উল্লেখ করেন। মুক্তিযুদ্ধের মূল্যবোধের ভিত্তিতে গণতান্ত্রিক, ধর্ম নিরপেক্ষ, সুখী ও সমৃদ্ধিশালী ডিজিটাল সোনার বাংলা বাস্তবায়নে স্ব-স্ব অবস্থান থেকে ভূমিকা পালন করার জন্য প্রত্যেকের প্রতি তিনি আহবান জানান।

যুক্তরাজ্যে অবস্থানরত কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন পেশাজীবী ও অন্যান্য সংগঠনের নেতৃস্থানীয় প্রতিনিধিবৃন্দ, স্থানীয় বৃটিশ-বাংলাদেশী প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সম্পাদক ও বিশিষ্ট সাংবাদিকসহ অন্যান্য আমন্ত্রিত অতিথিবর্গ এই সংবর্ধনায় অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠানের শেষে প্রীতিভোজের আয়োজন করা হয়।

ইতোপূবের্, বাংলাদেশের স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষ্যে ২৬ মার্চ অপরাহ্নে ওয়েস্ট মিনিস্টার অ্যাবে এক বিশেষ প্রার্থণা সভার আয়োজন করে, যেখানে বাংলাদেশের জনগণ ও নেতৃবৃন্দের সর্বাঙ্গীণ মঙ্গল কামনা করে বিশেষ প্রার্থণা করা হয়। মান্যবর হাইকমিশনার, দূতাবাসের কর্মকর্তাবৃন্দ এবং বিশিষ্ট কমিউনিটি ব্যক্তিবর্গ এই প্রার্থনায় অংশগ্রহণ করেন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close