ভারত জুড়ে

নিজের বিয়ে বন্ধে হাইকোর্টের দ্বারস্থ একটি মেয়ে

নিউজ ডেস্ক: নিজের বিয়ে বাতিল করতে হাইকোর্টের দ্বারস্থ ১৯ বছরের একটি মেয়ে। মামলা দায়ের করা হয়েছে বাল্য বিবাহ নিষিদ্ধকরণ আইনের তিন নম্বর ধারায়।

ভাবছেন, মেয়েদের ক্ষেত্রে বিয়ের বয়স তো ১৮। তাহলে? আসলে মেয়েটিকে যখন বিয়ে দেয়া হয়েছিল, তখন তার বয়স মাত্র ১১। ১১ বছর নয়, ১১ মাস। ১৬ বছর বয়সে সে জানতে পারে, সে বিবাহিত।

ভারতের যোধপুরের এই মেয়ের সাহসী পদক্ষেপ কিছুতেই মেনে নিতে রাজি নন তার গ্রাম ও পাড়া-প্রতিবেশীরা। একঘরে করে রাখা হয়েছে মেয়েটির পরিবারকে। বিয়ে বাতিলের চেষ্টায় আইনি সাহায্য চাওয়ার অপরাধে, সালিশিতে তাদের ওপর চাপানো হয়েছে ১৬ লাখ রুপির (২৫ হাজার মার্কিন ডলার) জরিমানা।

কিন্তু কিছুতেই হার মানতে রাজি নয় যোধপুর কন্যা। চোখ ফোটার পরই যার সঙ্গে তাকে বিয়ে দিয়ে দেয়া হয়েছিল, তাকে কিছুতেই স্বামী হিসেবে মেনে নেবে না সে। এখন সে তাকিয়ে রাজস্থান হাইকোর্টের রায়ের দিকে।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

আরও দেখুন...

Close
ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close