ইউরোপ জুড়ে

পায়ে হেটে ইউরো ট্যানেল পাড়ি দিয়ে বৃটেনে প্রবেশ

শীর্ষবিন্দু নিউজ ডেস্ক: ৩১ মাইল ট্রেনের রাস্তা পাড়ি দিয়ে পাঁয়ে হেটে বৃটেনে প্রবেশ করেছেন ইরানিয়ান দুই নাগরিক। ইউরোপ চ্যানেল ট্যানেলের পাড়ি দিয়ে ব্রিটেনে প্রবেশের সঙ্গে সঙ্গে গ্রেফতার হয়েছেন এই দুই বিদেশী নাগরিক।

অবৈধভাবে বৃটেনে প্রবশের অভিযোগে তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে। এ ঘটনার কারণে শনিবার সকাল পর্যন্ত কয়েক ঘন্টা ট্যানেল বন্ধ ছিল। ফ্রান্সের কালেতে নর্থ আফ্রিকা এবং মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশের প্রায় ৫ হাজার মাইগ্র্যান্ট অবস্থান করছেন।

কেন্ট পুলিশ জানিয়েছে, ২৫ ও ২০ বছর বয়সের দুই ইরানিয়ান নাগরিক বিপজ্জনকভাবে ট্যানেলের ভেতর পায়ে হেটে প্রায় ৩১ মাইল পথ পাড়ি দিয়ে কেন্টের ফকস্টনে পৌঁছার পর তাদের গ্রেফতার করা হয়। তাদেররকে মিডওয়ে কোর্টে হাজির করার পর ট্যানেল চ্যানেল রেল চলায় ব্যাঘাত ঘটনারো অভিযোগ আনা হয়।

এরমধ্যে প্রতিদিন রাতে প্রায় ২ হাজার মাইগ্র্যান্ট লরি বা ট্রেইনে ছড়ে বৃটেনে আসার চেষ্টা করে থাকেন। গত সপ্তাহে কঠোর নিরাপত্তা বেষ্টনি ভেঙ্গে প্রায় ১শ মাইগ্র্যান্ট কালে থেকে বৃটেনে আসার চেস্টা করেন। সর্বশেষ গত সপ্তাহে ২০ বছরের এক মাইগ্র্যান্ট ট্রেনের ছাদে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে প্রাণ হারান।

এর আগে গত আগষ্টে ৪০ বছর বয়সী এক সুদানি নাগরিক ট্যানেলের শত শত সিকিউরিটি ক্যামেরা ফাঁকি দিয়ে পায়ে হেটে কালে থেকে বৃটেনে প্রবেশের চেষ্টা করেন। কালেতে অবস্থানরত মাইগ্র্যান্টরা বৃটেনে প্রবেশের জন্য মরিয়া হয়ে আছেন বলে জানিয়েছে ইউরো টানেল কর্তৃপক্ষ। টানেল পাড়ি দিয়ে গিতে গত জুন থেকে এ পর্যন্ত ৩৩ জন প্রাণ হারিয়েছেন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close