অন্যকিছু

হঠাৎ বিয়ের অনুষ্ঠানের আগন্তুক বিদেশী মা

অন্যকিছু ডেস্ক: বিয়ের অনুষ্ঠানে সবাই বিস্মিত, হতবাক। অকস্মাৎ ভিনদেশী এক অতিথিকে দেখে সবার তো চোখ ছানাবড়া। কে এই বিদেশীনি! কিন্তু তখন আনন্দে চোখ বেয়ে অশ্রু ঝরছে কৃষ্ণা মোহন ত্রিপাটির (২৮)। তিনি চেনেন এই বিদেশীনিকে। তিনি আর কেউ নন ডেভ মিলার (৬০)। ফেসবুকে চার বছর আগে তাদের পরিচয়।

সেই থেকে তাদের মধ্যে যোগাযোগ। কৃষ্ণ মোহন ত্রিপাটির মা বিগত হয়েছেন অনেক আগে। তাই তিনি ডেভ মিলারের মাঝে নিজের মাকে খুঁজে ফেরেন। সত্যি সত্যি সেই ‘মা’-ই তার বিয়েতে এসে হাজির। এ আনন্দ ধরে রাখতে পারেন নি কৃষ্ণ মোহন।

তিনি ঝর ঝর করে কেঁদে ফেললেন তার মাকে দেখে। এ ঘটনা ঘটেছে ভারতের উত্তর প্রদেশের গোরকপুরে। নিজের ছেলে কৃষ্ণ মোহনের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে পেরে ডেভ মিলারেরও যেন আনন্দ অপার। তিনি ছেলে ও ছেলের নববধুকে নিয়ে ক্যামেরার সামনে দাঁড়ালেন। তখন ক্যামেরার ফ্লাশ জ্বলে ওঠে ক্লিক ক্লিক।

গত সপ্তাহে গোরকপুরের কৃষ্ণ মোহন বিয়ে করেন। সেই বিয়ের অনুষ্ঠানে সারপ্রাইজ দিতে গিয়ে হাজির ডেভ মিলার। বিশেষ এ অতিথিকে নিয়ে তখন আনন্দের মাত্রা বেড়ে গেল শতগুন। উল্লেখ্য, ডেভ মিলার যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার অধিবাসী। তার কোন ছেলেমেয়ে নেই।

অন্যদিকে কৃষ্ণ মোহন টিনেজ বয়সে হারান নিজের মাকে। চার বছর আগে ফেসবুকে যখন তাদের জানাজানি হয় তখন একজন যেন অন্যজনের ভিতর তার না পাওয়া সত্তাকে খুঁজে পান। কৃষ্ণ মোহনের মাঝে ডেভ মিলার খুঁজে পান তার সন্তান।

আবার ডেভ মিলারের মাঝে কৃষ্ণ মোহন খুঁজে পান তার মাকে। সেই যে সম্পর্ক জোড়া লেগেছে তার সফল পরিণতি হলো কৃষ্ণ মোহনের বিয়েতে। বিয়েতে ডেভ মিলারকে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন কৃষ্ণ মোহন। তিনি আমন্ত্রণ রেখে কথা দিয়েছিলেন ভারতে আসবেন। বিয়ের অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন। তবে কি সত্যি তিনি আসবেন! কিছুই আন্দাজ করতে পারছিলেন না কৃষ্ণ মোহন ত্রিপাটি।

অবশেষে বিয়ের দিন নব বর-বধুকে আশীর্বাদ করতে সত্যি সত্যি এলেন ডেভ মিলার। সঙ্গে নিয়ে এসেছেন ২৫ লাখ রুপির স্বর্ণালংকার। অনুষ্ঠানে ডেভ মিলারকে পরিয়ে দেয়া হয় বেনারসি শাড়ি। তাতে তার আনন্দ আকাশছোঁয়া।

রোববার তার ফিরে যাওয়ার কথা যুক্তরাষ্ট্রে। কৃষ্ণ মোহন বর্তমানে ফয়জাবাদে আওয়াধ ইউনিভার্সিটিতে এমএসসি পড়ছেন। তিনি একজন আইনজীবি হতে চান।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close