ইউরোপ জুড়ে

শিগগিরই মুসলমানরা ইউরোপে সংখ্যাগরিষ্ঠ হবে

শীর্ষবিন্দু নিউজ ডেস্ক: ইউরোপে খুব শিগগিরই সংখ্যার দিকে দিয়ে ধর্মপরায়ণ খ্রিস্টানদের ছাড়িয়ে যাবে ধর্মপরায়ণ মুসলিমরা। ইউরোপীয় পার্লামেন্টের ন্যায়বিচার ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়বিষয়ক কমিটির এক সভায় ব্রাসেলসে সন্ত্রাসী আক্রমণ নিয়ে শুনানিকালে বেলজিয়ামের বিচারমন্ত্রী কোয়েন গিনস এ কথা জানিয়েছেন।

এ নিয়ে ইউরোপীয় পার্লামেন্টের নেতারা বেশ চিন্তিত। সংখ্যার তারতম্যের কারণ নির্দেশ করতে গিয়ে বিচারমন্ত্রী বলেন, এর কারণ এটা নয় যে, ইউরোপে খুব বেশি মুসলিম রয়েছে। বরং খ্রিষ্টানরা ধর্মচর্চা কম করছেন। কিন্তু বেলজিয়ামের উপপ্রধানমন্ত্রী জান জামবোন পার্লামেন্ট সদস্যদের সতর্ক করে দিয়ে বলেন, সবচেয়ে বাজে কাজ হবে মুসলিমদের শত্রু মনে করা।

তিনি জানিয়েছেন, ইউরোপীয় পার্লামেন্টের ন্যায়বিচার ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়বিষয়ক কমিটির এক সভায় ব্রাসেলসে সন্ত্রাসী আক্রমণ নিয়ে শুনানিকালে তিনি বলেন, শুধুমাত্র অভিবাসী সমস্যা নয়, বাস্তবতা হলো ইউরোপের খ্রিষ্টানরা এখন ধর্মীয় চর্চা কমিয়ে দিয়েছেন। তাদের শত্রু মনে করলে, আমাদের সমস্যা বাড়বে বই কমবে না।

২০১২ সালের ইউরোপীয় কমিশনের তথ্য মতে, ইউরোপের ৭২ শতাংশ মানুষ নিজেকে খ্রিষ্টান বলে পরিচয় দেন কিন্তু তারা ধর্ম পালনে সক্রিয় নন। অধিকন্তু মুসলমানরা অধিক ধর্মভীরু ও ধর্মচর্চা করে থাকেন। বর্তমানে বেলজিয়ামে ৬ থেকে ৭ লাখ মুসলমান রয়েছে বলে তথ্যে জানা যায়।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close