জাতীয়

সরকারের সঙ্গে ফেসবুক গুগল ও মাইক্রোসফটের সমঝোতা

শীর্ষবিন্দু নিউজ ডেস্ক:অনলাইনভিত্তিক অনাকাঙ্ক্ষিত বিষয়ে প্রতিকার পেতে সরকারের সঙ্গে ফেসবুক গুগল ও মাইক্রোসফটের সমঝোতা হয়েছে। পাশাপাশি সরকারের অনুরোধে ইউটিউবে প্রকাশিত নীতিমালাপরিপন্থী ভিডিও প্রত্যাহারের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে গুগল।আজ রোববার জাতীয় সংসদে প্রশ্নোত্তর পর্বে এ তথ্য জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। স্বতন্ত্র সাংসদ রুস্তম আলী ফরাজীর এক প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন ফেসবুক, গুগল ও মাইক্রোসফটের সঙ্গে বিশদ আলোচনা করে সমঝোতা হয়েছে। সমঝোতা অনুযায়ী অনাকাঙ্ক্ষিত বিষয়ে সরকরের পক্ষ থেকে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে এর প্রতিকারের বিষয়ে উত্তর পাওয়া যাবে।

 তিনি জানান, গত বছরের জুলাই থেকে ডিসেম্বরের মধ্যে সরকারের পক্ষ থেকে ৩১ জন ব্যবহারকারীর ১২টি তথ্য চাওয়া হয়েছিল। এর মধ্যে ১৬ দশমিক ৬৭ শতাংশ তথ্য ফেসবুক কর্তৃপক্ষ সরকারকে দিয়েছে।

তারানা হালিম আরও বলেন, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের নিরাপদ ব্যবহার নিশ্চিত করতে ফেসবুক, গুগল ও মাইক্রোসফটের এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের সহায়তায় বিটিআরসি ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণের জন্য কার্যক্রম চলমান রয়েছে।

সংরক্ষিত নারী আসনে সরকারি দলের সাংসদ ফজিলাতুন নেসা বাপ্পির প্রশ্নের জবাবে তারানা হালিম বলেন, সরকারের অনুরোধে ইউটিউবে প্রকাশিত নীতিমালাপরিপন্থী ভিডিও প্রত্যাহারের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে গুগল। এ ছাড়া শিশু পর্নোগ্রাফি রোধ ও সাইবার নিরাপত্তায় মাইক্রোসফটের সঙ্গে সরকার কাজ করছে।

সরকারি দলের সাংসদ হাবিবুর রহমান মোল্লার প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী জানান, বঙ্গবন্ধু-১ স্যাটেলাইটে মোট ৪০টি ট্রান্সপন্ডার থাকবে। তার মধ্যে ২০টি বাংলাদেশের জন্য এবং ২০টি দেশের বাইরের জন্য। এসব ট্রান্সপন্ডার লিজের মাধ্যমে বৈদেশিক মুদ্রা আয় করা যাবে।

জাতীয় পার্টির সাংসদ মোহাম্মদ ইলিয়াছের প্রশ্নের জবাবে তারানা হালিম বলেন, বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে সিম নিবন্ধনের আগ পর্যন্ত গ্রাহকের পরিচিতি নিশ্চিত করার কার্যকর কোনো ব্যবস্থা ছিল না। পরীক্ষামূলকভাবে নমুনা যাচাই করে দেখা গেছে, দেশের অধিকাংশ গ্রাহকের পরিচিতি সঠিক নয়। এখন বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে গ্রাহকের পরিচিতি নিশ্চিত করা সম্ভব হচ্ছে। এ পদ্ধতিতে আঙুলের ছাপ সংগৃহীত হচ্ছে না। কেবলমাত্র জাতীয় পরিচয় তথ্যভান্ডারের সঙ্গে মিলিয়ে দেখা হচ্ছে। বায়োমেট্রিক ডিভাইসে যে অ্যাপের মাধ্যমে ছাপ গ্রহণ করা হচ্ছে, তাতে ছাপ সংগ্রহ করার সুযোগ নেই।

প্রশ্নোত্তরের আগে ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়ার সভাপতিত্বে বেলা পৌনে ১১টায় সংসদের অধিবেশন শুরু হয়। প্রশ্নোত্তর টেবিলে উত্থাপিত হয়।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close