ইউরোপ জুড়ে

চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মারকেল ইউরোপকে গৃহযুদ্ধের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে গেছেন

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মারকেল বিপদজনক। তিনি শরণার্থীদের জন্য মুক্তদ্বার নীতি গ্রহণ করে ইউরোপকে গৃহযুদ্ধের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে গেছেন।

বিশ্বে অন্যতম শক্তিধর শীর্ষ নারী অ্যাঙ্গেলা মারকেলের বিরুদ্ধে এমন বজ্রকঠিন মন্তব্য করেছেন অস্ট্রিয়ার উগ্র ডানপন্থি দল ফ্রিডম পার্টির চেয়ারম্যান । সমর্থকদের উদ্দেশে তিনি অভিবাসীদের এলিয়েন বা ভিন গ্রহ থেকে আসা প্রাণীর সঙ্গে তুলনা করেছেন।

তিনি বলেছেন, অনিয়ন্ত্রিতবাবে তাদের অনুপ্রবেশ মেনে নেয়া হয়েছে। এতে আমাদের সামাজিক কল্যাণকর ব্যবস্থার ওপর ধীরে ধীরে প্রভাব পড়ছে। এর ফলে মধ্যবর্তী একটি গৃহযুদ্ধের আশঙ্কা উড়িয়ে দেয়া যায় না। এ খবর দিয়েছে লন্ডনের অনলাইন দ্য এক্সপ্রেস। এতে বলা হয়েছে, অস্ট্রিয়ায় জাতীয় নির্বাচন আসন্ন। এতে প্রেসিডেন্ট পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ফ্রিডম পার্টির প্রার্থী নরবার্ট হোফার।

তার সমর্থনে আয়োজিত র‌্যালিতে বক্তব্য রাখেন স্ট্রাচে। তিনি বলেন, নরবার্ট হোফার হবেন সব অস্ট্রিয়ান নাগরিকের। কিন্তু নিজে বক্তব্য রাখতে গিয়ে অভিবাসন বিরোধী কোনো কথা বলেন নি নরবার্ট হোফার। ৪৫ বছর বয়সী এই প্রার্থী সাম্প্রতিক এক নির্বাচনী পোস্টারে লিখেছিলেন, সো হেলপ মি গড।

অর্থাৎ সৃষ্টিকর্তা আমাকে সাহায্য করো। তবে নির্বাচনী পোস্টারে এমন লেখনির সমালোচনা করেছেন ইসলাম ও ক্রিশ্চিয়ান সম্প্রদায়ের কর্মকর্তারা। তারা বলছেন, নির্বাচনী পোস্টারে সৃষ্টিকর্তাকে নিয়ে প্রচারণা চালানো অযৌক্তিক। এই স্লোগানের নিন্দা জানিয়ে এরই মধ্যে অস্ট্রিয়ার প্রটেস্ট্যান্ট চার্চের তিনটি শাখাই একটি বিবৃতি দিয়েছে।

তাতে বলা হয়েছে, সৃষ্টিকর্তা শুধু একজনের মনোবাসনা বা তার রাজনৈতিক উদ্দেশ্য পূরণ করেন না। এতে আরও বলা হয়, গড বা ঈশ্বরকে এভাবে সম্বোধন করার মাধ্যমে অন্য ধর্ম ও সংস্কৃতিকে পরোক্ষভাবে অবহেলা করা হয়।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close