ইউরোপ জুড়ে

রাশিয়া সীমান্তে কয়েক হাজার সেনা মোতায়েন করবে ন্যাটো

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের আতঙ্ক যখন ছড়িয়ে পড়েছে তখন এ বিষয়ে কর্মপরিকল্পনা নতুন করে সাজাচ্ছে ন্যাটো। রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এরই মধ্যে তার দেশের যুদ্ধ প্রস্তুতি বৃদ্ধি করেছেন।

এ অবস্থায় রাশিয়া সীমান্তে কয়েক হাজার বাড়তি সেনা মোতায়েন করবে ন্যাটো। রাশিয়ার বাড়বাড়ন্তের কারণে তারা এ পরিকল্পনা নিতে বাধ্য হচ্ছে। ইউরোপীয় ইউনিয়নের কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বৈশ্বিক এই জোটের বিগত বৈঠকে গৃহীত সিদ্ধান্তের ভিত্তিতেই এটা করা হবে।

এর অধীনে রাশিয়ার সঙ্গে পোল্যান্ড, এস্তোনিয়া, লাতভিয়া ও লিথুয়ানিয়া সীমান্তে ওইসব সেনা সদস্যদের মেতায়েন করা হবে। এ খবর দিয়েছে লন্ডনের অনলাইন এক্সপ্রেস। জুলাইয়ে ওয়ারস’তে ন্যাটো সম্মেলনে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

তাতে বলা হয়েছে, মস্কো যদি সার্বিক যুদ্ধ শুরু করে তাহলে রাশিয়া সীমান্তের কাছাকাছি তিন থেকে চার হাজার সেনা মোতায়েন করা হবে। সেই সিদ্ধান্তই এখন বাস্তবায়ন করতে চাইছে ন্যাটো। এ মিশনে পোল্যান্ডে নেতৃত্ব দেবে যুক্তরাষ্ট্র। এস্তোনিয়ায় নেতৃত্ব দেবে বৃটেন। এ মিশনে সেনা সরবরাহ করবে জার্মানি, কানাডা ও ফ্রান্সও।

এছাড়া এ সপ্তাহে ব্রাসেলসে দু’দিনের সম্মেনে অপারেশন সোফিয়া নামে চুক্তি স্বাক্ষর করতে যাচ্ছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও ন্যাটো। ভূমধ্যসাগরে অভিবাসী সঙ্কট সমাধানের লক্ষ্যকে সামনে নিয়েই হবে এ চুক্তি। ওই সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন ন্যাটোর প্রতিরক্ষামন্ত্রী জেনস স্টলটেনবার্গ। তিনি বলেছেন, এই অপারেশনের মধ্য দিয়ে ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও ন্যাটোর মধ্যে সম্পর্ক আর সুদৃঢ় হবে।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close