Americaযুক্তরাষ্ট্র জুড়ে

ট্রাম্প বিরোধী বিক্ষোভে মার্কিনিদের যোগ দেয়ার আহ্বান নিউ ইয়র্কের মেয়রের

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত ডনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ বিক্ষোভে যোগ দিতে সব মার্কিনির প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন নিউ ইয়র্কের মেয়র বিল ডি ব্লাসিও। বলেছেন, মার্কিনিরা লড়াইয়ে নেমে আসুন। এর মাধ্যমেই তার (ট্রাম্প) কাছ থেকে ক্ষমতা নিতে হবে। এ খবর দিয়েছে লন্ডনের অনলাইন দ্য ইন্ডিপেন্ডেন্ট।

ল্লেখ্য, মেয়র বিল ডি ব্লাসিও ডেমোক্রেট দলের টিকিটে নিউ ইয়র্কে নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি মুখরা বলে পরিচিত। যা মুখে আসে তিনি তা-ই বলে দেন। এ জন্য তাকে নিয়ে অনেক আলোচনা সমালোচনা আছে।

আগামী বছর নিউ ইয়র্কে নতুন করে মেয়র নির্বাচন। তাতে তিনি আবার প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। এরই মধ্যে গত ৮ই নভেম্বর যুক্তরাষ্ট্রে হয়ে গেল প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। তাতে রিপাবলিকান প্রার্থী ডনাল্ড ট্রাম্প বিজয়ী হয়েছেন।

এরপর যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন এলাকায় ট্রাম্প বিরোধী বিক্ষোভ শুরু হয়েছে। বিশেষ করে মেয়র ব্লাসিওর নিজ শহর নিউ ইয়র্কে বড় ধরনের বিক্ষোভ হয়েছে। কিছু রাজনীতিক এমন বিক্ষোভের নিন্দা জানিয়েছেন। কিন্তু বিল ডি ব্লাসিও এ রকম বিক্ষোভকে উৎসাহিত করেন।

নিউ ইয়র্ক ডেইলি নিউজের মতে তিনি স্থানীয় একটি রেডিও স্টেশনকে সাক্ষাতকার দিয়েছেন। তাতে মেয়র ব্লাসিও বলেছেন, আমাদেরকে স্বীকার করতে হবে এদের সর্বত্র যত বেশি শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ হবে ততো বেশি সামনে চলার পথ পরিবর্তন হবে।

ডোনাল্ড ট্রাম্প ঘৃণা ও বিভক্তিকে উৎসাহিত করেন। তার এমন প্রতিটি পদক্ষেপের বিষয়ে তাকে আমাদের জবাবদিহিতার আওতায় আনা প্রয়োজন। তিনি যত বেশি কট্টর হবেন তত বেশি মানুষ তার বিরুদ্ধে লাড়ইয়ে নামবে, তত বেশি তার কাছ থেকে ক্ষমতা নেয়ার সুযোগ সৃষ্টি হবে।

তিনি টুইটারে বলেছেন, মার্কিনিদের একটি রীতি হলো শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ। ওদিকে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত ডনাল্ড ট্রাম্প তার চিফ স্ট্রাটেজিস্ট হিসেবে নিয়োগ দিয়েছেন স্টিফেন বেননকে। এ বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন মেয়র ব্লাসিও। তাকে বর্ণবাদ বলে নিন্দা জানানো হয়েছে। বলা হয়েছে তিনি ব্রেইটবার্ত নামের সংগঠন ব্যবহার করে উস্কানিমুলক ও বিভক্তি সৃষ্টিকারী দৃষ্টিভঙ্গি ছড়িয়ে দিচ্ছেন।

এছাড়াও অভিবাসন সহ বিভিন্ন ইস্যুতে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত ট্রাম্পের সঙ্গে তার ভিন্নমত রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রে যেসব মানুষ যথাযথ কাগজপত্র ছাড়া অবস্থান করছেন তাদেরকে এবারের নির্বাচনে ইস্যু বানিয়েছিলেন ট্রাম্প। তিনি ক্ষমতা নেয়ার পর এসব মানুষকে যুক্তরাষ্ট্র থেকে দ্রুততার সঙ্গে বের করে দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। বলেছেন, প্রথমেই তিনি ২০ থেকে ৩০ লাখ অভিবাসীকে বের করে দেবেন।

উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্রে প্রায় এক কোটি ১০ লাখ অবৈধ অভিবাসী আছেন। তার মধ্যে শুধু নিউ ইয়র্কেই বসবাস প্রায় ৫ লাখের। এসব অভিবাসীকে ট্রাম্প বের করে দেয়ার কথা বললেও তাদেরকে সুরক্ষা দেয়ার জন্য এরই মধ্যে অন্য কয়েকটি বড় শহরের মেয়রদের সঙ্গে আলোচনা করেছেন ব্লাসিও। তারা একজোট হয়ে এসব অভিবাসীকে সুরক্ষা দিতে চান।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close