ভারত জুড়ে

ফেসবুকে বাবাকে আল্লাহর সঙ্গে তুলনার পর কঠিন ঝামেলায় কমেডিয়ান মীর

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: কলকাতার খ্যাতিমান কমেডিয়ান ও রেডিও জকি মীর (মীর আফসার আলী) ঈদ উপলক্ষ্যে তার বাবার সঙ্গে তোলা একটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন।

মঙ্গলবার নবভারতটাইমস.কম জানায়, গতকাল সোমবার ঈদের দিন টিপু সুলতান মসজিদের বাইরে পিতার সঙ্গে সেলফি তোলেন মীর। এরপর তা পোস্ট করেন ফেসবুকে যেখানে নিজের বাবাকে সৃষ্টিকর্তার সঙ্গে তুলনা করেন।

ছবির সঙ্গে মীর যা লেখেন তা হচ্ছে- আমার আব্বা…আমার আল্লাহ…ঈদ মোবারক। এই ছবি ও কমেন্টে শত শত লোক লাইক দেয় এবং অনেকেই মীরকে অভিনন্দন জানান। কিন্তু আরেকদল লোক বিষয়টি সেভাবে নেননি। তারা মীর কেন তার পিতাকে সৃষ্টিকর্তার সঙ্গে তুলনা করলেন সে প্রশ্ন তুলেছেন। সংক্ষুব্ধ অনেকেই মীর ও তার বাবাকে গালিগালাজ পর্যন্ত করছেন সামাজিক মাধ্যমে। বিষয়টি নিয়ে কঠিন ঝামেলায় পড়েছেন বাংলাদেশেরও ব্যাপক জনপ্রিয় এই কমেডিয়ান, অভিনেতা ও আরজে।

তবে পরিস্থিতির গুরুত্ব আঁচ করে মীর সন্ধ্যার দিকেই ওই পোস্টটি মুছে ফেলেন এবং তার ভক্তদের উদ্দেশ্যে একটি ভিডিও মেসেজ পোস্ট করেন। এতে তিনি উল্লেখে করেন যে এখন থেকে তিনি তার ফেসবুক ওয়ালে শুধু নিজের বন্ধুদেরই কমেন্ট করতে দেবেন।

অবশ্য ওই কমেন্টের মাধ্যমে তিনি তার জন্মদাতা পিতাকে ঠিক ঠিক আল্লাহর সঙ্গে তুলনা করেছেন কি না- সে সম্বন্ধে তার বক্তব্য জানা যায়নি।

বড়দিন কাণ্ডের পর মীরের অভিমানাহত বক্তব্য

তবে ফেসবুকে ধর্মীয় বিষয় নিয়ে বিতর্ক সৃষ্টি মীরকে নিয়ে এটাই প্রথম নয়। গতবছর খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের বড়দিন উৎসব নিজের পরিবারের সঙ্গে উদযাপন করেন যা সামাজিক মাধ্যমে মীরকে নানান সূঁচালো মন্তব্যের খোঁচা সইতে বাধ্য করে। মুসিলিম হিসেবে বড়দিন উদযাপন ঠিক হয়েছে কি না- এমন প্রশ্ন তোলেন একপক্ষ। এর জবাবে আরেকদল মীরের পক্ষ নেন।

খ্যাতিমান বাঙালি লেখক আবুল বাশার মীরকে সমর্থন করেছেন। পশ্চিমবঙ্গের গায়ক রূপম ইসলামও মীরকে খোঁচানোর (ট্রলিং) নিন্দা করে বলেন, যারা তাকে ট্রল করতে চাচ্ছে তারা মীরের স্তর পর্যন্ত পৌঁছাতে পারে না। মীর সমাজের একজন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি।

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

আরও দেখুন...

Close
ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close