লন্ডন থেকে

পূর্ব লন্ডনের স্টার্টফোর্ড শপিং সেন্টারের সামনে এসিড হামলায় আহত ৬

শীর্ষবিন্দু নিউজ: পূর্ব লন্ডনের স্টার্টফোর্ড শপিং সেন্টারের সামনে এসিড ছুড়ে হামলা চালানো হয়েছে। এতে কমপক্ষে ৬ জন আহত হয়েছেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমমের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা যায়।

শনিবার স্থানীয় সময় রাত আটটায় নিউহ্যামের স্ট্রাটফোর্ড সেন্টারে এ ঘটনার পর পুলিশ ডেকে নেয়া হয়। হামলায় জড়িত সন্দেহে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ খবর দিয়েছে লন্ডনের অনলাইন দ্য ইন্ডিপেন্ডেন্ট।

এতে বলা হয়, একদল পুরুষ লোকজনের ওপর ক্ষতিকর পদার্থ স্প্রে করে ছিটিয়ে দেয়। এমন হামলা হয় বেশ কয়েকটি স্থানে। প্রত্যক্ষদর্শীয় বলেছেন, স্ট্রাটফোর্ড সেন্টারে একদল লোকের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এরপরই দু’জনকে দৌড়ে একটি ফাস্টফুডের টয়লেটে প্রবেশ করতে দেখেন।

তারা সেখানে প্রবেশ করেন মুখে ছুড়ে মারা এসিড ধুয়ে ফেলতে। এমন সাক্ষ্য দিয়েছেন বার্গার কিংয়ের সহকারী ম্যানেজার হোসেন (২৮)। আরেক প্রত্যক্ষদর্শী জাক আবদি। তিনি স্ট্রাটফোর্ড রেল স্টেশনের একটি ফুটেজ ধারণ করেছেন।

তিনি বলেন, একদল লোক একটি ক্লাবের পথে ছিলেন। তাদের ওপর অকস্মাৎ অন্য একদল মানুষ কিছু একটা ছুড়ে মারে। তা শুধু একজনকে আক্রান্ত করে নি। এতে ওই দলের অনেকেই আহত হয়েছেন। ওই দলের একজনের মুখে লেগেছে এসিড। এ সময় তিনি চিৎকার করছিলেন- আমি কিছু দেখতে পাচ্ছি না বলে।

জাক আবদি বলেন, আমার মনে হয় ওই ব্যক্তি তার দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছেন।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমমের প্রতিবেদনে বলা হয়, দগ্ধদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তবে ঘটনার পরপর অনেক অ্যাম্বুলেন্স ও পুলিশের গাড়ি হাজির হয়। এক বিবৃতিতে স্কটল্যান্ড ইয়ার্ড জানিয়েছে, তারা এখনও এই ঘটনাকে সন্ত্রাসী হামলা মনে করছে না।

মেট্রপলিটন পুলিশ জানায়, রাত আটটার কিছুক্ষণ আগেই স্ট্র্যাটফোর্ড শপিং সেন্টারে এই এসিড হামলা চালানো হয়। এলাপাতাড়ি এই হামলায় ৬ জন দগ্ধ হয়েছেন। কয়েকজন পুরুষ মিলে এই হামলা চালিয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শপিংমলে কয়েকজনে মধ্যে ঝগড়া লেগে যায়। সেখান থেকেই বিবাদের শুরু। হোসেন নামে ওই শপিংমলের একটি ফাস্ট ফুডের সহকারী ব্যবস্থাপক বলেন, তার পরিচিত একজন এসিডে আহত হওয়ার পর পানি দিয়ে মুখ ধোওয়ার জন্য ওয়াশরুমে যান। তবে ঘটনার প্রকৃত কারণ এখনও জানা যায়নি।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close