লন্ডন থেকে

ব্রিটিশ কারি ইন্ডাষ্ট্রিতে ষ্টাফ সংকট ২০ হাজার: লন্ডনে টেকওয়ে এন্ড রেষ্টুরেন্ট এক্সপোতে কিনোট স্পীকারের বক্তব্যে অলি খান

লন্ডনে দু’দিনব্যাপী টেকওয়ে এন্ড রেষ্টুরেন্ট ইনোভেশন উদ্বোধনী এক্সপো ২০১৭’র  অনুষ্টানে তুলে ধরা হলো ক্যাটারিং ইন্ডাষ্ট্রির ষ্টাফ সংকট সহ বিভিন্ন সমস্যা ও সম্ভাবনার চিত্র।

২৬ এবং ২৭ সেপ্টেম্বর দু‘দিন ব্যাপী লন্ডনের এক্সেল সেন্টারে ইউরোপের সবচেয়ে বড় ফুড ইন্ডাষ্ট্রির এই ইনোভেশনটি প্রতিদিন সকাল দশটা থেকে চলে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত। এতে আয়োজন করা হয় ১৫০টি ফ্রি-সেমিনার, ৩০০টি সাপ্লায়ারের প্রদর্শনী ছিল এর অন্যতম আকর্ষন।

প্রথম দিন অপেনিং অনুষ্টানে কী-নোট স্পীকারের বক্তব্যে বাংলাদেশ ক্যাটারারর্স এ্যাসোসিয়েশন (বিসিএ) এর সেক্রেটারী জেনারেল সেলবরিটি শেফ অলি খান ব্রিটিশ কারি ইন্ডাষ্ট্রির ষ্টাফ সংকট সহ এই সেক্টরের সার্বিক চিত্র তুলে বলেন, বর্তমানে এই সেক্টরে শেফ ওয়েটার সহ অন্যান্য ষ্টাফের সংকট রয়েছে। এই সেক্টরে নন-ইউরোপীয়ান মাইগ্রেনটরা কাজ করলেও তাদের দ্বারা সকল কাজ করানো সম্ভব নয়।

এই সেক্টরকে ঠিকিয়ে রাখতে হলে বাহির থেকে শেফ আমদানীর ছাড়া অন্য কোন বিকল্প নেই, আমরা দীর্ঘ দিন যাবত বাহির থেকে শেফ ওয়াইটার সহ দক্ষ ষ্টাফ আনার দাবী জানিয়ে আসছি। তিনি বলেন ক্যাটারিং সেক্টরে কাজের প্রচুর সুযোগ রয়েছে যারা কাজ করতে আগ্রহী আমরা তাদের ট্রেনিং সহ সব ধরনের সুযোগ সুবিদা প্রদান করে থাকি।

অলি খান আরো বলেন আজ থেকে দুইশ বছর আগে বৃটেনে প্রথম করি হাউজের যাত্র শুরু হলেও এটি দিন দিন জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। চিকেন টিক্কা মসল্লা এখন ব্রিটিশ ক্যালচারের অংশ হয়ে দাড়িয়েছে। কারিশিল্পের বিকাশ ঘটানোর লক্ষ্যে ১৯৬০ সালে প্রতিষ্ঠা করা হয় বাংলাদেশ ক্যাটারার্স এ্যাসোসিয়েন (বিসিএ)। বর্তমানে বিসিএ বৃটেনে ১২হাজার রেষ্টুরেন্ট এবং টেকওয়ের প্রতিনিধিত্ব করছে। এই সেক্টরে কর্মরত রয়েছে লক্ষাধিক মানুষ। কারি ইন্ডাষ্ট্রি বৃটেনের অর্থনীততে যোগান দিচ্ছে ৪.৫ বিলিয়ন পাউন্ড। বর্তমানে এই ইন্ডাষ্ট্রিতে ২০,০০০ দক্ষ এবং অদক্ষ ষ্টাফের অভাব রয়েছে।

এই অনুষ্টানে ক্যাটারিং সেক্টরের বিশেষজ্ঞরা তাদের মতামত তুলে ধরেন। বংলাদেশ ক্যাটারারর্স এ্যসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল ইয়াকুব বলেন অনলাইন অর্ডারিং সিষ্টেম এবং আ্যপস সহ আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার খুবই জরুরী। প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে লোকবল যেমন কম লাগে অন্যদিকে দ্রুত কাজ করা সম্ভব এবং সাশ্রয়ী।

অন্যান্য বক্তারা এর ভবিষ্যৎ নিয়ে আলোকপাত করেন। অন্যানের মধ্যে অপেনিং অনুষ্টানে আরো বক্তব্য রাখেন, ম্যানেজিং ডিরেক্টর অব টেকওয়ে এক্সপো জেমস উইলিয়াম, আ্যবিল কমপস ডারেক্টর অব ফান্সসাইজ জেসন ম্যাকডনাল্ডস, জাষ্ট ইটের মার্কেটিং ডিরেক্টর গ্রাহাম ক্ররফিল্ড। এ ছাড়া অন্যান্য সেক্টর থেকে বক্তারা তাদের নিজস্ব মতামত তুলে ধরেন।

এক্সপোতে বক্তারা বাংলাদেশ ক্যাটারারর্স এ্যাসিয়েশনকে একটি আমব্রেলা সংগঠন হিসেবে উল্লেখ করে বলেন এই সংগঠনটি সমগ্র গ্রেটবৃটেনে ১৬টি রিজিওনাল কমিটির মাধ্যমে ১২ হাজার ব্রিটিশ বাংলাদেশী রেষ্টুরেন্ট এবং টেকওয়ের প্রতিনিধিত্ব করছে। এক্সপোতে বাংলাদেশ ক্যাটারারর্স এ্যাসোসিয়েশন (বিসিএ) এর পক্ষ থেকে আরো উপস্থিত ছিলেন সাইদুর রহমান বিপুল চীপ ট্রেজারার, অর্গেনাইজিং সেক্রেটারী মিঠু চৌধুরী, মেম্বারশীফ সেকেটারী সাইফুল আলম, প্রেস এন্ড পাবলিকেশন সেক্রেটারী ফরহাদ হোসেন টিপু, বিসিএ’র অফিস ম্যানেজার আলী বাবর, ব্রেন্ট কাউন্সিলের সাবেক মেয়র কাউন্সিলার পারভেজ আহমদ, জয়েন্ট চীপ ট্রেজারার ফয়জুল হক, বিসিএ‘র ভাইস প্রেসিডেন্ট মাসুদ আহমেদ, ফিরোজুল হক, নাজাম উদ্দিন নজরুল, হেলাল মালিক, সেলেবরিটি শেফ আতিক রহমান,আতাউর রহমান লায়েক, সিদ্দিক রহমান সহ আরো অনেকে।

– প্রেরিত সংবাদ

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close