আফ্রিকা জুড়ে

বিচার থেকে রেহাই পেলেন মুগাবে ও তার স্ত্রী

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: অলিখিত ক্যু এবং দলের চাপের মুখে পদত্যাগ করা জিম্বাবুয়ের সাবেক প্রেসিডেন্ট রবার্ট মুগাবে ও তার স্ত্রীকে দায়মুক্তি দেওয়া হয়েছে। এর ফলে কোনো অপরাধের জন্য তাদের বিচার করবে না নতুন সরকার। গতকাল বৃহস্পতিবার দেশটির সেনাবাহিনী এই তথ্য জানিয়েছে। জিম্বাবুয়ের প্রতিরক্ষা বাহিনীর মুখপাত্র কর্নেল ওবারসন মুগওয়াইসি জানান, মুগাবের সঙ্গে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। এতে তাকে ও স্ত্রী গ্রেসকে দায়মুক্তি ও দেশে নিরাপদে বসবাসের নিশ্চয়তা দেওয়া হয়েছে।

এর আগে মঙ্গলবার বিভিন্ন গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয়েছিল যে, দেশ ত্যাগের সুযোগ পাবেন এমন শর্তে পদত্যাগ করেছেন মুগাবে। তবে সেনাবাহিনী তার স্ত্রীকে ছাড় দিতে রাজি হয়নি। তাকে গ্রেফতার ও বিচারের মুখোমুখি দাঁড় করানো হবে। মঙ্গলবার পদত্যাগ করেন জিম্বাবুয়ের ৩৭ বছরের এই শাসক।

তার বিরুদ্ধে আশির দশকে বিরোধীদের হত্যার অভিযোগ রয়েছে। ওই সময়ে প্রায় ২০ হাজার মানুষ হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছিলেন। একই সঙ্গে তার ও স্ত্রীর বিরুদ্ধে দুর্নীতির বিস্তর অভিযোগ রয়েছে। সেনাবাহিনী রাজধানী হারারের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর প্রায় এক সপ্তাহ দরকষাকষি করে দায়মুক্তি আদায় করেন মুগাবে।

এদিকে, আজ শুক্রবার এমারসন ম্যানানগাওয়া দেশটির নতুন প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নিতে যাচ্ছেন বলে জানিয়েছে সরকারি গণমাধ্যম। দেশে ফিরে সমর্থকদের উদ্দেশ্যে এক ভাষণে তিনি ধন্যবাদ দেন সেনাবাহিনীকে এবং সকলের সহযোগিতার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, তিনি দেশের অর্থনীতি ও গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে তার পার্শ্ববর্তীদেশসমূহ, আফ্রিকান কমিউনিটি এবং বহির্বিশ্বের সহায়তা চান।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close