Americaযুক্তরাষ্ট্র জুড়ে

নিউইয়র্কে বিস্ফোরণ: অনলাইন প্রচারণার ফাঁদে পড়ে সন্ত্রাসবাদের পথে আকায়েদ

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: অনলাইনে প্রচারণার ফাঁদে পড়ে সর্বনাশা সন্ত্রাসবাদের পথে পা বাড়ান নিউইয়র্ক সিটি সাবওয়ে বিস্ফোরণ ঘটনার জন্য অভিযুক্ত বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত আকায়েদ উল্ল্যাহ।

২৭ বছর বয়সী এ তরুণ জানিয়েছেন, তিনি সন্ত্রাসীদের প্রচারণায় উদ্বুদ্ধ হয়েছিলেন। আর অনলাইনে পাওয়া নির্দেশনার মাধ্যমে বিস্ফোরক ডিভাইস তৈরির কৌশল শিখেছেন। তারপর ব্রুকলিনে নিজের অ্যাপার্টমেন্টে বসেই বোমা তৈরি করেছিলেন।

সোমবার সকালের বিস্ফোরণের পর আকায়েদকে আহত অবস্থায় গ্রেফতার করে বেলভিউ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

নিউইয়র্কের নিরাপত্তা বাহিনীর কর্মকর্তারা বলছেন, বিশ্বজুড়ে মুসলিম হত্যার প্রতিশোধ নিতেই নিউইয়র্ক সিটি সাবওয়ে বিস্ফোরণ ঘটানোর দাবি করেছে আকায়েদ উল্ল্যাহ।

তবে তার সঙ্গে জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস ) কোনো সরাসরি যোগাযোগ নেই, এমনকি এ বিষয়ে তার কাছ থেকে এমন কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।

তবে তাদের দাবি, আইএসনিয়ন্ত্রিত ভূখণ্ডে যুক্তরাষ্ট্রের বোমা হামলার কারণে আকায়েদ ক্ষুব্ধ ছিলেন। এর প্রতিশোধ নিতেই তিনি আত্মঘাতী বোমা হামলা চালানোর পরিকল্পনা করেন।

নিউইয়র্কের আইনপ্রয়োগকারী কর্মকর্তারা বলছেন, আকায়েদ গত ক্রিসমাসে পোর্ট অথরিটি বাস টার্মিনালের জনাকীর্ণ সাবওয়েতে বোমা বিস্ফোরণের পরিকল্পনা করেছিলেন।

এর আগে তিনি ওই জায়গা ঘুরে ছুটির দিনে মানুষের সমাগম পর্যবেক্ষণ করেছেন।বিস্ফোরণ ঘটানোর সময় তার শরীরে ম্যাচ, ক্রিস্টমাস ট্রি লাইটও পাওয়া গেছে।

সোমবার সকালের বিস্ফোরণের পর ব্রুকলিনের অন্তত তিনটি বাসায় আকায়েদ ও তার পরিবারের সদস্যদের সন্ধানে তল্লাশি চালিয়েছে পুলিশ। তার পরিবারের কয়েক সদস্যকে আটক করা হয়েছে।

নিউইয়র্ক সিটি ট্যাক্সি ও লিমোসাইন কমিশনের একজন মুখপাত্র বলেছেন, বাংলাদেশি আকায়েদ উল্ল্যাহ ২০১১ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি অভিবাসন ভিসায় যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি জমান।

তিনি যুক্তরাষ্ট্রের গ্রিন কার্ডধারী বৈধ স্থায়ী মার্কিন বাসিন্দা।২০১২ সালের মার্চ থেকে ২০১৫ সালের মার্চ পর্যন্ত আকায়েদের ক্যাব ড্রাইভিং লাইসেন্স করার তথ্য রয়েছে। সম্প্রতি তিনি বৈদ্যুতিক মিস্ত্রি হিসেবে কাজ করছেন।

Tags

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close