Featuredআরববিশ্ব জুড়ে

ইসরাইলি মন্ত্রীর অনুপ্রবেশ আল আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে

শীর্ষবিন্দু আন্তর্জাতিক নিউজ ডেস্ক: ইসরাইলি কৃষিমন্ত্রী উরি এরিয়েলের নেতৃত্বে একদল দখলদার ইহুদি পবিত্র আল আকসা মসজিদে অনুপ্রবেশ করেছেন।

গত রোববার ইসরাইলি নিরাপত্তারক্ষীদের কড়া প্রহরায় পরিবেষ্টিত হয়ে মুসলমানদের প্রথম কেবলায় ঢুকে পড়েন তারা। খবর আনাদুলুর।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ইসরাইলি ডানপন্থী দল জিউস হোম পার্টির সদস্য এরিয়েলের নেতৃত্বে দখলদার ইহুদি বসতি স্থাপনকারী আল আকসায় অনুপ্রবেশ করেন। এর পর এরিয়েল সারা বছর ইহুদিদের প্রার্থনা করার জন্য আল আকসা এলাকা উন্মুক্ত রাখার দাবি জানান।

২০১৫ সালে নিষেধাজ্ঞা জারির পর এই প্রথম ইসরাইলি কোনো কর্মকর্তা আল আকসায় অনুপ্রবেশ করলেন।

এই পদক্ষেপকে আল আকসা মসজিদ ধ্বংস করে ইহুদিদের মন্দির তৈরির পরিকল্পনার বাস্তবায়নের অংশ বলে ধারণা করা হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, ২০০০ সালের সেপ্টেম্বরে ইসরাইলি রাজনীতিক এরিয়েল শ্যারন আল আকসায় পরিদর্শনে গেলে ফিলিস্তিনিরা দ্বিতীয় ইন্তিফাদার ডাক দেন। এই গণবিক্ষোভে হাজার হাজার ফিলিস্তিনি নিহত হন।

এর পর ২০১৫ সালে দখলদার ইহুদি বসতি স্থাপনকারীরা উপর্যুপরি আল আকসায় অনুপ্রবেশের প্রতিবাদে অধিকৃত পশ্চিমতীরে ফিলিস্তিনিরা প্রচণ্ড বিক্ষোভ দেখান।

ওই বছরের অক্টোবরে পরিস্থিতি শান্ত করতে ইসরাইলি পার্লামেন্ট নেসেট সদস্যদের আল আকসায় প্রবেশের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেন প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু।

তিন বছর পর গত সপ্তাহে নেতানিয়াহু ইসরাইলি কর্মকর্তাদের ওপর থেকে ওই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেন। তিনি নেসেট সদস্যদের প্রতি তিন মাসে একবার সেখানে যাওয়ার অনুমতি দেন।

নেসেট সদস্যদের আল আকসা পরিদর্শন করার ২৪ ঘণ্টা আগে অনুমোদনের জন্য ইসরাইলি কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করতে হয়।

ইসরাইলের চ্যানেল-৭ জানিয়েছে, কৃষিমন্ত্রী উরি এরিয়েল নিয়ম মেনে আবেদন করলে তা অনুমোদন করে ইসরাইলি সরকার।

মহানবী (সা.) ইসলাম প্রচার শুরু করার পর মক্কার মুসলমানরা প্রথমে আল আকসা মসজিদকে কেবলা নির্ধারণ করে নামাজ পড়তে শুরু করেন।

পরে নবী (সা.) মদিনায় হিজরত করলে কাবা শরিফকে কেবলা নির্ধারণ করে নামাজ পড়া শুরু হয়।

এর পর মুসলমানদের কাছে আল আকসা মসজিদে তৃতীয় পবিত্রতম স্থানের মর্যাদা পেয়ে আসছে।

তবে ইহুদিরা আল আকসাহ প্রাঙ্গণের একটি অংশকে ‘টেম্পল মাউন্ট’ হিসেবে উল্লেখ করে থাকেন। তাদের সেখানে দুটি ইহুদি মন্দিরের স্থান ছিল।

কিছু চরমপন্থী ইহুদি আল আকসা মসজিদ ধ্বংস করে সেখানে ইহুদি সিনাগগ নির্মাণের দাবি জানিয়ে আসছে।

উল্লেখ্য, ১৯৬৭ সালে আরবের সঙ্গে ইসরাইলের ছয় দিনের যুদ্ধকালে দখলদার ইহুদিবাদীরা পূর্ব জেরুজালেম দখল করে নেন। এখানেই মসজিদুল আকসা অবস্থিত।

১৯৮০ সালে পুরো জেরুজালেম শহরকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণা করা হয়। তবে এই স্বীকৃতি আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃতি পায়নি।

গত বছরের ৬ ডিসেম্বর জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তবে এই স্বীকৃতি আন্তর্জাতিকভাবে গ্রহণযোগ্যতা পায়নি।

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট করেছে সাইন সফট লিমিটেড
Close