বুধবার, ১২ মে ২০২১, ০৬:৪৮

রোগীর মৃত্যুর সংখ্যা লাফিয়ে বাড়ছে শহীদ শামসুদ্দিনে

রোগীর মৃত্যুর সংখ্যা লাফিয়ে বাড়ছে শহীদ শামসুদ্দিনে

এখানে শেয়ার বোতাম
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

শীর্ষবিন্দু নিউজ, সিলেট: হঠাৎ করে রোগীর মৃত্যুর বিষয়টি ভাবিয়ে তুলেছে সিলেটবাসীদের। শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের আইসিইউতে লড়াইয়ের শেষ মুহূর্তে ডাক্তারদের প্রাণান্তর চেষ্টা। এই হাসপাতালের রোগী ও রোগ নিয়ে মূল লড়াই হয় আইসিইউতে। সিলেটে করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েই চলেছে।

এবার শামসুদ্দিনে বেড়েছে রোগী মৃত্যুর সংখ্যা। গতকাল রবিবার সিলেটে আরো ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতাল দুটোতেই বেড়েছে মৃত্যুর সংখ্যা। গত চারদিনে সিলেটে মারা গেছেন ১৭ জন রোগী। গতকাল সিলেটে যে ৫ জন করোনা রোগী মারা গেছেন তার মধ্যে তিনজনই মারা গেছেন শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায়।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, এবার যারা আক্রান্ত হচ্ছেন তাদের দ্রুতই চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করতে হচ্ছে। ফলে অনেকেই বিলম্বে হাসপাতালে আসেন। আবার কেউ কেউ বেসরকারি হাসপাতালে অর্ধেক চিকিৎসা শেষ করে আসেন। অন্যান্য রোগে ভোগা রোগীরাও আসেন। ফলে ক্রিটিক্যাল সব রোগীকেই পাঠানো হয় সরকারি ব্যবস্থাপনায় পরিচালিত শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে। এ কারণে সব সময় সাধারণ ওয়ার্ড ও আইসিইউতে রোগীদের চাপ থাকে বেশি।

হাসপাতালের আরএমও ডা. সুশান্ত মহাপাত্র গণমাধ্যমকে জানান, হাসপাতালে সবকিছু স্বাভাবিকভাবে চলছে। মাঝে মধ্যে রোগী বেড়ে গেলে ‘ম্যানেজ’ করতে হয়। আইসিইউতে প্রতিনিয়ত রোগীর ভিড় লেগেই থাকে।

সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. হিমাংশু লাল রায় জানিয়েছেন, সিলেটে করোনা পরিস্থিতি আগের চেয়ে ভালো রয়েছে। গোটা দেশেই বেড়েছে রোগী মৃত্যুর সংখ্যা। সিলেটও এর বাইরে নয়। এরপরও চিকিৎসকরা করোনাকালে রোগীদের জীবন রক্ষায় যে পরিশ্রম করছে সেটি অবিশ্বাস্য। তিনি বলেন, সিলেটে রোগী বাড়লে চিকিৎসার পরিধিও বাড়বে। সরকারের নির্দেশনার প্রেক্ষিতে তারাও প্রস্তুত রয়েছেন বলে জানান।

শামসুদ্দিনের চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, গতকাল সকাল পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় ৩ জন রোগীর মৃত্যু কোনোভাবে কাম্য নয়। একটি জীবনই সবার কাছে গুরুত্বপূর্ণ। রোগীদের যথাসময়ে ডাক্তারের পরামর্শে চলে আসলে হয়তো মৃত্যু সংখ্যা কমানো যাবে বলে জানান তারা। তবে গতকাল সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত কেউ মারা যাননি বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য মতে-  গত ২৪ ঘণ্টায় সিলেট বিভাগে যে ৫ জন মারা গেছেন এর মধ্যে সিলেট জেলার ৪ জন ও সুনামগঞ্জের ১ জন রয়েছেন। এ পর্যন্ত গত এক বছরে সিলেট বিভাগে করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৩৩৭ জনের। এর মধ্যে সিলেট জেলার ২৬৫ জন, সুনামগঞ্জে ২৭ জন, হবিগঞ্জে ১৮ জন ও মৌলভীবাজারের ২৭ জন রয়েছেন। গেল ২৪ ঘণ্টায় সিলেটের চারটি ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় ৮৮ জন করোনা আক্রান্ত শনাক্ত হন। এর মধ্যে সিলেট জেলার ৫৩ জন, সুনামগঞ্জের ২ জন, হবিগঞ্জের ৫ জন, মৌলভীবাজারের ৯ জন ও সিলেট ওসমানী মেডিকেলে আরো ১৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়। সিলেট বিভাগে করোনা প্রমাণিত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২০ হাজার ৩২০ জন। শুধুমাত্র সিলেট জেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৩ হাজার ২ জন।

এছাড়া সুনামগঞ্জে ২ হাজার ৭১৬ জন, হবিগঞ্জে ২ হাজার ৩২০ জন ও মৌলভীবাজারে ২ হাজার ২৮২ জনের করোনায় আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছে। সিলেটে সুস্থ হয়েছেন ১৮ হাজার ৬০৯ জন। এর মধ্যে সিলেট জেলার ১২ হাজার ১৩৫ জন। এছাড়া এখন পর্যন্ত সুনামগঞ্জে ২ হাজার ৬০৪ জন, হবিগঞ্জে ১ হাজার ৭৭০ জন ও মৌলভীবাজারে ২ হাজার ১০০ জন সুস্থ হয়েছেন। সিলেট বিভাগের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ২৬৬ জন। এর মধ্যে সিলেট জেলায় ২৪২ জন, সুনামগঞ্জে ৪ জন, হবিগঞ্জে ১৩ জন, মৌলভীবাজারে ৭ জন।

উল্লেখ্য, সিলেটে করোনা সংক্রমণের হার কিছুটা কমেছে। লকডাউনের কারণে এর প্রভাব পড়তে শুরু করেছে। আক্রান্তের সংখ্যা কম হলেও মৃত্যুর সংখ্যা কমছে না।


এখানে শেয়ার বোতাম
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  






পুরানো সংবাদ সংগ্রহ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১  
All rights reserved © 2021 shirshobindu.com